রবিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮
রবিবার, ৮ই আশ্বিন ১৪২৫
 
 
অবৈধভাবে বালু উত্তোলনকালে বলগ্রেটসহ আটক ৭
প্রকাশ: ০৭:৩০ pm ২৪-১২-২০১৭ হালনাগাদ: ০৭:৩০ pm ২৪-১২-২০১৭
 
হবিগঞ্জ প্রতিনিধি:
 
 
 
 


হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলার কুশিয়ারা নদী থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনকালে দুটি বালুভর্তি বলগ্রেটসহ ৭ জনকে আটক করা হয়েছে।

রবিবার বিকেলে উপজেলা প্রশাসন ঝটিকা অভিযান চালিয়ে তাদেরকে আটক করে। পরে আটককৃত বলগ্রেট জব্দ করে রেখে ৭ জনসহ অবৈধ বালু উত্তোলনকারীদের বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলা দায়ের করা হয়।

মিজানুর রহমান সোহেল জানান, নবীগঞ্জ উপজেলার বন্যা কবলিত এলাকা থেকে বন্যা নিয়ন্ত্রণ বাঁধ কুশিয়ারা ডাইক এবং বিবিয়ানা পাওয়ার প্লান্টের কাছে কুশিয়ারা নদী থেকে কয়েকটি ড্রেজার মেশিন বসিয়ে দীর্ঘ এক মাস যাবৎ সরকারী রাজস্ব ফাঁকি দিয়ে একটি প্রভাবশালী সিন্ডিকেট অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করে আসছিল। এ ব্যাপারে হবিগঞ্জ জেলা প্রশাসক বরাবরে একাধিক লিখিত অভিযোগ দেন এলাকাবাসী। এদিকে রবিবার বিকেলে হবিগঞ্জ জেলা প্রশাসক মনীষ চাকমার নির্দেশে নবীগঞ্জ উপজেলার নবাগত নির্বাহী কর্মকর্তা তৌহিদ-বিন হাসান ও নবাগত সহকারী কমিশনার (ভূমি) আতাউল গণি ওসমানীর নেতৃত্বে পুলিশসহ একটি টিম ঘটনাস্থলে গিয়ে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনকালে দুটি বালুভর্তি বলগ্রেটসহ ৭ শ্রমিককে আটক করেছে। এসময় দুটি ড্রেজার মেশিন নিয়ে বালু উত্তোলনকারী কয়েকজন শ্রমিক পালিয়ে যায়। পরে ভূমি অফিসের তহশীলদার আব্দুল কাইয়ূম বাদী হয়ে এ বিষয়ে একটি মামলা দায়ের করেন।

এদিকে কুশিয়ারা নদী থেকে অবৈধভাবে বালূ উত্তোলনের ফলে যেকোন মুহুর্তে নদী ভাঙ্গন ও বিবিয়ানা পাওয়ার প্লান্ট এবং শেরপুর সেতু ধ্বসে পড়বে বলে আশংকা করছেন স্থানীয় লোকজন।

এলাকাবাসীর অভিযোগ, অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের ফলে উপজেলার আউশকান্দি ইউনিয়নের বিবিয়ানা পাওয়ার প্লান্টসহ ওই এলাকার পাহাড়পুর, পারকুল, বনগাঁও ও ব্রাম্মন গ্রামের শেরপুর লঞ্চঘাট এলাকায় ভাঙন তীব্র আকার ধারণ করেছে। ধ্বসে পড়ার আশংকার মধ্যে রয়েছে বিবিয়ানা পাওয়ার প্লান্ট এবং শেরপুর সেতু। উত্তোলনকৃত বালু একই এলাকার পার্শ্ববর্তী অর্থনৈতিক জোন শ্রীহট্রতে সরবরাহ করা হচ্ছে।

এদিকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের সাথে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান জড়িত থাকার অভিযোগ করলেন পারকুল গ্রামের বাসিন্দা হবিগঞ্জ জেলা পরিষদের সদস্য আব্দুল মতিন আছাব।

অভিযোগ অস্বীকার করে ইউপি চেয়ারম্যান মুহিবুর রহমান হারুন বলেন, তিনি বালু উত্তোলনকারী সিন্ডিকেটের সাথে জড়িত নয়। একটি চক্র তার বিরুদ্ধে এসব অপপ্রচার করছে।

এ ব্যাপারে নবীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তৌহিদ-বিন হাসান বলেন, অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের অভিযোগ পেয়ে জেলা প্রশাসক এর নির্দেশে ঘটনাস্থলে গিয়ে দুটি বলগ্রেট মেশিনসহ ৭ জনকে আটক করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট আইনে নিয়মিত মামলা দায়ের করা হয়েছে।

এম/এসএম

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
Study in RUSSIA
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : নিন্দ্রা ভৌমিক

খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2018 Eibela.Com
Developed by: coder71