শুক্রবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮
শুক্রবার, ৬ই আশ্বিন ১৪২৫
 
 
আজও বাজে বিনয় বাঁশীর ঢোল
প্রকাশ: ০২:৪৯ pm ০৫-০৪-২০১৫ হালনাগাদ: ০২:৪৯ pm ০৫-০৪-২০১৫
 
 
 


ঢাকা: দেশীয় বাদ্যযন্ত্র ঢোলের সঙ্গে পরিচয় নেই এমন মানুষ হয় তো বাংলাদেশে খুঁজে পাওয়া যাবে না। এমন কি দেশের গণ্ডি ছাড়িয়ে উন্নত বিশ্বেও ঢোলের ব্যবহার চোখে পরার মতো। কিন্তু যে মানুষটি ঢোলকে বিদেশের মাটিতে পরিচিত করে তুলেছেন তাকে আমরা কয়জনই বা চিনি। তিনি হলেন উপমহাদেশের প্রখ্যাত ঢোল বাদক বিনয় বাঁশী জলদাশ।
১৯১১ সালে চট্টগ্রামের বোয়ালখালী উপজেলার পূর্ব গোমদণ্ডী গ্রামের এক জেলে পরিবারে জন্ম নেন ঢোল বাদক বিনয় বাঁশী জলদাশ। বাবা উপেন্দ্র লাল জলদাস ও মা সরবালা জলদাস। শৈশবে দারিদ্রের সঙ্গে যুদ্ধ করে বেড়ে উঠা এই শিল্পী লেখাপড়া বেশি দূর করতে পারেননি। স্থানীয় রামসুন্দর বসাকের বাল্যশিক্ষাই ছিলো তার সম্বল।
প্রায় ৯১ বছরের জীবনে বিনয় বাঁশী জলদাশ বেশির ভাগ সময়ই পার করেছেন ঢোলের সঙ্গে। তিনিই প্রথম ব্যক্তি, যিনি বাংলার ঢোলকে বিদেশে পরিচিত করে তুলেন। উপমহাদেশের প্রখ্যাত কবিয়াল রমেশ শীলের সঙ্গে থেকেই তিনি ঢোলকে সকলের কাছে জনপ্রিয় করে তুলেন।
ঢোলকে আর্ন্তজাতিক পরিচিতি এনে দেয়ার স্বীকৃতি হিসেবে বিনয় বাঁশী জলদাশ দেশে বিদেশ হতে অর্ধশতাধিক পুরস্কার লাভ করেছেন। তার মধ্যে ২০০১ সালে একুশে পদক সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য। কিন্তু মাত্র এক বছরের মাথায় ২০০২ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি তিনি হৃদরোগে আক্রান্ত হন। কয়েকমাস মৃত্যুর সঙ্গে লড়াই করে ৫ এপ্রিল দিবাগত রাত দেড়টায় নিজ বাসভবনে পরলোক গমন করেন।
 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
Study in RUSSIA
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : নিন্দ্রা ভৌমিক

খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2018 Eibela.Com
Developed by: coder71