শুক্রবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮
শুক্রবার, ৬ই আশ্বিন ১৪২৫
 
 
রাজশাহীতে রেলমন্ত্রীর পক্ষে সংবর্ধনা
ট্রেন রক্ষার ‘বীর সৈনিক' খেতাব পেল দু'শিশু
প্রকাশ: ০৭:২৬ pm ২২-১২-২০১৭ হালনাগাদ: ০৭:২৬ pm ২২-১২-২০১৭
 
এইবেলা ডেস্ক:
 
 
 
 


রাজশাহীর বাঘা উপজেলার আড়ানী পৌরসভার ঝিনা গ্রামের শিশু শিহাব ইসলাম ও লিটন আলীকে 'ট্রেন রক্ষার ‘বীর সৈনিক' হিসেবে ঘোষণা করল পশ্চিম রেল।

দুর্ঘটনার কবল থেকে ট্রেন রক্ষা করায় তাদের এ উপাধি দেয়া হয়েছে। বৃহস্পতিবার দুপুরে রাজশাহী রেলওয়ে স্টেশনে দু'শিশুকে রেলমন্ত্রী মুজিবুল হকের পক্ষ থেকে সংবর্ধনা দেয়া হয়।

এ সময় পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের মহাব্যবস্থাপক খায়রুল আলম তাদেরকে দেয়া রেলপথ বিভাগের এ উপাধির কথা প্রকাশ করেন।

এ সময় শিহাব ও লিটনের হাতে ক্রেস্ট তুলে দিয়ে তাদের সংবর্ধনা জানানো হয়। তাদের বাবা-মায়ের হাতে রেলমন্ত্রীর পক্ষ থেকে পুরস্কার হিসেবে তুলে দেয়া হয় ৫০ হাজার করে এক লাখ টাকা।

এছাড়া পশ্চিমাঞ্চল রেল শ্রমিক লীগের পক্ষ থেকেও কিছু টাকা দেয়া হয়। এর আগে বিশেষ অতিথি হিসেবে এই দু'শিশু সেখানে গেলে তাদের ফুল দিয়ে বরণ করে নেয়া হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন পশ্চিম রেলের মহাব্যবস্থাপক খায়রুল আলম। অতিরিক্ত মহাব্যবস্থাপক সাবাহ উদ্দিন সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন। অনুষ্ঠানে ওদের প্রশংসা করেন রেলের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

বক্তব্য রাখে শিহাব ও লিটনও। তারা বলে, রেললাইনের পাশে খেলতে গিয়ে তারা ক্ষতিগ্রস্ত লাইন দেখতে পায়। এরপরই তারা বাড়ি থেকে লাল মাফলার নিয়ে গিয়ে তা রেললাইনের ওপর টেনে ধরে।

এরপর ট্রেনটি থামিয়ে দেয় চালক। পরে ট্রেনচালক নেমে গিয়ে তাদের সালাম দেয়। তাদের বাবা-মায়েরা বলেন, তাদের ছোট্ট ছোট্ট এ সন্তানেরা ট্রেন থামিয়ে এমন বুদ্ধিমত্তার পরিচয় দেবে, তা তারা ভাবতেও পারেননি।

এখন তারা তাদের সন্তানদের নিয়ে গর্বিত। তারা চান, প্রতিটি ঘরে ঘরেই এমন সচেতন শিশুর জন্ম হোক। কাজ করুক দেশের জন্য।

এর আগে সকালে বাঘা উপজেলা পরিষদ হলরুমে রাজশাহী বিভাগীয় প্রশাসনের পক্ষ থেকে শিহাব ও লিটনকে সংবর্ধনা দেয়া হয়।

বিভাগীয় কমিশনার নূর-উর-রহমান তাদের হাতে ক্রেস্ট তুলে দেন। এছাড়া প্রত্যেককে নগদ পঁাচ হাজার করে টাকা ও গরম কাপড়ও দেয়া হয়। ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানানো হয় দু'শিশুকে।

ঝিনা গ্রামের সুমন আলীর ছেলে শিহাব এবং শহিদুল ইসলামের ছেলে লিটন। শিহাব ঝিনা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রথম শ্রেণীতে এবং লিটন একই স্কুলে পড়ে দ্বিতীয় শ্রেণীতে।

একেবারেই হতদরিদ্র পরিবারের সন্তান তারা। সোমবার বাড়ির পাশের রেললাইন ভাঙা দেখে মাফলার দেখিয়ে তেলবাহী একটি ট্রেন থামিয়ে দেয় তারা। এতে দুর্ঘটনার কবল থেকে রক্ষা পায় ট্রেনটি।

এ ঘটনার পরই স্থানীয় এমপি পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম দু'শিশুকে আড়ানীর নায়ক উপাধি দিয়ে তাদের পড়াশোনার দায়িত্ব নেয়ার ঘোষণা দেন।

পরে তাদের সংবর্ধনা জানান উপজেলা নির্বাহী অফিসার। এছাড়া বুধবার পশ্চিম রেলের পাকশী বিভাগের পক্ষ থেকেও তাদের সংবর্ধনা জানানো হয়।

এসকে 


 

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
Study in RUSSIA
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : নিন্দ্রা ভৌমিক

খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2018 Eibela.Com
Developed by: coder71