বৃহস্পতিবার, ১৫ নভেম্বর ২০১৮
বৃহঃস্পতিবার, ১লা অগ্রহায়ণ ১৪২৫
 
 
ডাবল সেঞ্চুরির দেখা না পেয়ে হতাশ মেন্ডিস
প্রকাশ: ১০:৩১ pm ০২-০২-২০১৮ হালনাগাদ: ১০:৩১ pm ০২-০২-২০১৮
 
এইবেলা ডেস্ক
 
 
 
 


ডাবল সেঞ্চুরির একেবারে দোরগোড়ায় চলে গিয়েছিলেন লংকান ওপেনার কুশল মেন্ডিস। আর মাত্র ৪ রান যোগ করতে পারলেই ডাবল সেঞ্চুরির দেখা পেয়ে যেতেন তিনি। কিন্তু তাকে ১৯৬ রানেই থামিয়ে দেন স্বাগতিক বাংলাদেশ দলের স্পিনার তাইজুল ইসলাম। মুশফিকুর রহিমের ক্যাচ হয়ে হতাশাকে সঙ্গী করে মাঠ ছাড়েন লংকান এই ওপেনার।

এর আগেও গত বছর গল টেস্টে বাংলাদেশ দলের বিপক্ষে ডাবল সেঞ্চুরি করার সুযোগ পেয়েছিলেন কুশল মেন্ডিস। সেবারও ডাবল সেঞ্চুরির কাছাকাছি গিয়ে হতাশ হতে হয় তাকে। ১৯৪ রান করে সেবার মাঠ ছাড়তে হয়েছিল। এভাবে টাইগারদের বিপক্ষে দু'দুবার ডাবল সেঞ্চুরির এত কাছে গিয়েও তা না পাওয়ায় ভীষণ হতাশ এই তারকা ওপেনার।

চট্টগ্রাম টেস্টের তৃতীয় দিন শেষে শুক্রবার দলের সেরা পারফরমার হিসেবে সংবাদ সম্মেলনে মেন্ডিসেরই লংকানদের প্রতিনিধি হয়ে আসার কথা। কিন্তু ডাবল সেঞ্চুরি না পাওয়ার 'হতাশার' কারণে তিনি আসেননি। তার পরিবর্তে লংকান দলের মুখপাত্র হিসেবে আসেন তাদের ব্যাটিং কোচ থিলান সামারাভিরা। সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে তিনি কুশল মেন্ডিসের হতাশার কথা তুলে ধরে বলেন, 'ডাবল সেঞ্চুরি না পেয়ে হতাশ কুশল মেন্ডিস।'

মেন্ডিসের ভূয়সী প্রশংসা করে লংকান ব্যাটিং কোচ সামারাভিরা বলেন, '২৩ বছর বয়সী কুশল মেন্ডিস ইতিমধ্যে দু-দুবার ডাবল সেঞ্চুরির কাছাকাছি গিয়েও শেষ পর্যন্ত তা করতে পারেনি। এটা তার জন্য সত্যিই হতাশার। তাকে আমরা আরও সুযোগ দিতে চাই। আমরা বিশ্বাস করি, কুশল মেন্ডিসের ব্যাটিং প্রতিভা অসাধারণ। এ কারণেই তাকে ওপেনিং পজিশনে ব্যাট করার সুযোগ দেওয়া হয়েছে। সে স্পিনের বিপক্ষেও দারুণ কার্যকর। ম্যাচের এই অবস্থা জন্য পুরো কৃতিত্ব দিতে চাই কুশল মেন্ডিজ ও ধনাঞ্জয়া ডি সিলভাকে। শুরুতেই উইকেট হারানোর পরও এ দুজনের ৩০৮ রানের জুটি দলকে শক্ত অবস্থানের দিকে নিয়ে গেছে।'

এই টেস্টে লিড নিয়ে ভাবছে না লংকানরা—এ জানিয়ে সামারাভিরা বলেন, 'আমরা লিড নিয়ে ভাবছি না। আমাদের প্রথম চাওয়া যত লম্বা সময় ধরে ব্যাটিংটা চালিয়ে যাওয়া যায়। এই টেস্টের চতুর্থ দিনের লাঞ্চ পর্যন্ত প্রথমে ব্যাটিং করতে চাই আমরা, এরপর দেখি কী হয়।'

চতুর্থ দিনের প্রথম দুই ঘণ্টা খুবই গুরুত্বপূর্ণ উল্লেখ করে সামারাভিরা বলেন, শনিবারের প্রথম দুই ঘণ্টা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। আমরা ভালো আরও একটি জুটি গড়তে চাই। স্বাভাবিক ব্যাটিংটাই করতে চাই আমরা। কারণ এই ম্যাচের এখনও ১৮০ ওভার বাকি। আমাদের তিনজন ভালো মানের স্পিনার রয়েছে। বাংলাদেশ দল ৫১৩ রান করার পর আমরা শুধু ব্যাটিংটা চালিয়ে যেতে চেয়েছি।

গত বছর দারুণ ছন্দে থাকা ওপেনার করুনারত্নেকে এই ম্যাচের শুরুতেই হারালেও কুশল মেন্ডিস ও ধনাঞ্জয়া ডি সিলভা ব্যাট হাতে ঠিকই দাঁড়িয়ে যান।

নি এম/

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
Study in RUSSIA
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : নিন্দ্রা ভৌমিক

খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2018 Eibela.Com
Developed by: coder71