রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০১৯
রবিবার, ৮ই বৈশাখ ১৪২৬
সর্বশেষ
 
 
দিনাজপুরে বজ্রপাতে ৪ হিন্দুসহ ৮ জনের মৃত্যু
প্রকাশ: ১০:০৭ am ২৪-০৯-২০১৭ হালনাগাদ: ১০:১০ am ২৪-০৯-২০১৭
 
দিনাজপুর প্রতিনিধি
 
 
 
 


দিনাজপুরের বিভিন্ন উপজেলায় বজ্রপাতে তিন নারীসহ আট জনের মৃত্যু হয়েছে। দগ্ধ হয়েছেন সাত জন। শনিবার বিরলের রাজারামপুর গ্রামে চার জন, মোকলেসপুরে একজন, চিরিরবন্দরের চকরামপুর, বোচাগঞ্জের মালগাঁও ও খানসামার আলোকঝড়ী গ্রামের একজন করে মারা যান।

মৃতরা হলেন বিরলের রাজারামপুর গ্রামের মেছের আলী (৩৬), শুকুর উদ্দিন (৪০), কুশু চন্দ্র (১৭), বনিতা রায় (৩০), মোকলেসপুরের সাকিবুল ইসলাম (১২), খানসামার আলোকঝড়ী গ্রামের দীনবন্ধু রায় (৪০), চিরিরবন্দরের হালিমা খাতুন (৩২) এবং বোচাগঞ্জের মালগাঁও গ্রামের গীতা রানী (৪৭)।

বিরল থানার ওসি আব্দুল মজিদ বলেন, সকাল থেকে আমন ধান ক্ষেতে কাজ করছিলেন সাত কৃষক। দুপুরে বৃষ্টির সময় তারা পাশের একটি খড়ের ছাউনির নিচে অবস্থান নিয়ে খাওয়া-দাওয়া করছিলেন।

বজ্রপাতে দুটি ছাগলও মারা যায় বজ্রপাতে দুটি ছাগলও মারা যায় “ওই সময় বজ্রপাত হলে ঘটনাস্থলে দুই জন এবং দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আরও দুই জন মারা য়ান।” বজ্রপাতে খড়ের ছাউনিটি পুড়ে যায় এবং সেখানে থাকা দুটি ছাগলও মারা যায় বলে জানান ওসি।

ওসি আরও জানান, আহতরা হলেন মুক্তি রানী, নলিতা রায় , জোৎস্না রানী, তাইজুল হোসেন,  জিয়া, গলিরাম রায়, সুকুমার রায়। তাদেরকে এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। 

ওসি মজিদ আরও জানান, হেলাল উদ্দিনের ছেলে সাকিবুল ইসলাম বাড়ির পাশে বৃষ্টির পানিতে গোসল করার সময় বজ্রপাতে দগ্ধ হন। স্থানীয় হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।   

খানসামা থানার ওসি আব্দুল মতিন প্রধান বলেন, দীনবন্ধু রায় দুপুরে আকাশে মেঘ দেখে গোয়ালে গরু বাঁধার সময় বজ্রপাতে ঘটনাস্থলে মারা যান। 

বোচাগঞ্জ থানার ওসি সাজ্জাদ হোসেন জানান, দুপুরে বৃষ্টি শুরু হলে গীতা রানী মাঠে বাঁধা গরু আনতে গেলে বজ্রপাতে ঘটনাস্থলে মারা যান।

বিএম/

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

সম্পাদক : সুকৃতি কুমার মন্ডল 

 খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

+8801711-98 15 52

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2019 Eibela.Com
Developed by: coder71