রবিবার, ১৮ নভেম্বর ২০১৮
রবিবার, ৪ঠা অগ্রহায়ণ ১৪২৫
 
 
দূরত্ব ঘোচাতে সহযোগিতা করুন: প্রধান বিচারপতি
প্রকাশ: ০৯:২৬ am ০৭-০৮-২০১৭ হালনাগাদ: ০৯:২৬ am ০৭-০৮-২০১৭
 
এইবেলা ডেস্ক
 
 
 
 


নিম্ন আদালতের বিচারকদের চাকরির শৃঙ্খলাসংক্রান্ত বিধিমালা নিয়ে বিচার বিভাগ ও নির্বাহী বিভাগের মধ্যে টানাপড়েন চলছে বেশ কিছুদিন ধরে। সুপ্রিম কোর্টের বিচারক অপসারণক্ষমতা জাতীয় সংসদের হাতে পুনর্বহালসংক্রান্ত সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী নিয়ে আপিল বিভাগের পূর্ণাঙ্গ রায়ের পর দুই বিভাগের মধ্যে দূরত্ব আরো বেড়েছে বলে মনে করছেন সিনিয়র আইনজীবীরা। ওই অবস্থায় দুই বিভাগের মধ্যে দূরত্ব ঘোচাতে সরকার সমর্থক কয়েকজন সিনিয়র আইনজীবীর সঙ্গে বৈঠক করেছেন প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা। রবিবার দুপুরে অনুষ্ঠিত ওই বৈঠকে বর্তমান পরিস্থিতির উত্তরণ ঘটাতে আইনজীবীদের সহযোগিতা চেয়েছেন প্রধান বিচারপতি। আইনজীবীরাও সহযোগিতার আশ্বাস দিয়েছেন।

প্রধান বিচারপতির দপ্তরে প্রায় ঘণ্টাব্যাপী চলা ওই বৈঠকে অংশ নেন সাবেক আইনমন্ত্রী ব্যারিস্টার শফিক আহমেদ, সাবেক আইনমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য অ্যাডভোকেট আব্দুল মতিন খসরু এবং আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামণ্ডলীর সদস্য ও সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট ইউসুফ হোসেন হুমায়ুন।

বৈঠকের বিষয়টি নিশ্চিত করে ব্যারিস্টার শফিক আহমেদ সাংবাদিকদের বলেন, ‘দুপুরে বৈঠক হয়েছে। প্রধান বিচারপতি ইউসুফ হোসেন হুমায়ুনকে ডেকেছিলেন। তিনি আবার আমাকে নিয়ে গিয়েছিলেন। ’

শফিক আহমেদ  বলেন, ‘বিচার বিভাগ ও নির্বাহী বিভাগের মধ্যে বিভিন্ন ইস্যুতে যে দূরত্ব সৃষ্টি হয়েছে, তা নিরসনে ভূমিকা রাখার আহ্বান জানিয়েছেন প্রধান বিচারপতি। এ বিষয়ে বারের ভূমিকা থাকা উচিত বলে মনে করেন প্রধান বিচারপতি।

আমরা বলেছি, এ ব্যাপারে বার সহযোগিতা করবে। ’ শফিক আহমেদ আরো বলেন, ‘সবাইকে মনে রাখতে হবে, কোনো অবস্থায়ই বিচার বিভাগ ও নির্বাহী বিভাগের মধ্যে দূরত্ব থাকা উচিত নয়। এটা কারো কাম্য নয়। আইন ও সংবিধান অনুযায়ী নিজ নিজ বিভাগের দায়িত্ব পালন করা উচিত। ’

অ্যাডভোকেট ইউসুফ হোসেন হুমায়ুন সাংবাদিকদের বলেন, প্রধান বিচারপতির সঙ্গে কথা হয়েছে। তিনি আইনজীবীদের সহযোগিতা চেয়েছেন। ইউসুফ হোসেন হুমায়ুন আরো বলেন, ‘রায়ে কিছু পর্যবেক্ষণ দেওয়া হয়েছে। তা নিয়ে বিরোধীপক্ষ মিষ্টি খাচ্ছে। বিরোধী রাজনৈতিক দল এটাকে রাজনৈতিক প্রপাগান্ডা দিয়ে ভিন্ন দিকে নিচ্ছে—এটা কারো জন্য শোভন নয়। এ কারণে ভেবেচিন্তে পদক্ষেপ নেওয়া প্রয়োজন। এটা প্রধান বিচারপতিকে বলা হয়েছে। প্রধান বিচারপতি বিষয়টি নিরসনের জন্য বারের সহযোগিতা চেয়েছেন। ’

জানা গেছে, প্রধান বিচারপতি ওই তিন সিনিয়র আইনজীবীর সঙ্গে বৈঠক করার আগে অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম এবং সরকারদলীয় সংসদ সদস্য ব্যারিস্টার ফজলে নূর তাপসের সঙ্গে বৈঠক করেন।

প্রচ

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
Study in RUSSIA
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : নিন্দ্রা ভৌমিক

খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2018 Eibela.Com
Developed by: coder71