শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০১৯
শুক্রবার, ৪ঠা শ্রাবণ ১৪২৬
 
 
নলছিটিতে জিংকসমৃদ্ধ ব্রি-৬৪ ধান চাষ নিয়ে কৃষক সমাবেশ
প্রকাশ: ০৩:৫৬ pm ১৯-০৫-২০১৫ হালনাগাদ: ০৩:৫৬ pm ১৯-০৫-২০১৫
 
 
 


ঝালকাঠি প্রতিনিধি : ‘জিংক ধান করলে চাষ, পুষ্টি পাবে বারো মাস’ স্লোগানকে সামনে রেখে ঝালকাঠির নলছিটি উপজেলার ভৈরবপাশা ইউনিয়নের প্রতাপ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে সোমবার বিকেলে জিংকসমৃদ্ধ ব্রি-৬৪ জাতের ধান চাষাবাদ বিষয়ে কৃষক সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। বাঙালির প্রধান খাদ্য ভাতে জিংকের অভাব দূরসহ অপুষ্টি থেকে রক্ষা করতে বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউট (ব্রি) এ জাতটি উদ্ভাবন করেছে। জাতটি সম্পর্কে কৃষকের সচেতনতা বাড়াতে হার্ভেস্ট প্লাস ও স্বদেশ উন্নয়ন কেন্দ্র (সুখ) ব্রি-৬৪ এর প্রদর্শনীর মাঠ দিবস উপলক্ষে এ সমাবেশের আয়োজন করে। 
কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের বরিশাল অঞ্চলের অতিরিক্ত পরিচালক মো. আবদুল আজিজ ফরাজী এতে প্রধান অতিথি এবং ব্রি-৬৪ জাতের উদ্ভাবক, বরিশালস্থ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউটের ইনচার্জ, মুখ্য বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ডক্টর মো. আলমগীর হোসাইন প্রধান আলোচক ছিলেন। কৃষি অধিদফতরের ঝালকাঠির উপপরিচালক শেখ আবুবকর সিদ্দিক, নলছিটি উপজেলা কৃষি অফিসার মো. সাইদুর রহমান, সুখ এর জেলা সমন্বয়কারী সেলিম হাওলাদার ও কৃষক মোশারেফ হোসেন বক্তৃতা করেন। 
সভাপতিত্ব করেন ভৈরবপাশা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান একেএম আবদুল হক। 
আলোচকরা জানান, ব্রি ধান-৬৪ বোরো মৌসুমের একটি জাত। এতে জিংকের পরিমাণ প্রচলিত জাতের চেয়ে প্রতি কেজিতে আট মিলিগ্রাম বেশি। এ জাতটি গত বছর (২০১৪ সালে) জাতীয় বীজ বোর্ড থেকে চাষাবাদের অনুমোদন পেয়েছে। এ জাতের চাল মাঝারি মোটা ও সাদা। এর গড় জীবনকাল ১৪৫ থেকে ১৫০ দিন। অন্য উফশী বোরো ধানের মতই এর চাষ পদ্ধতি। এতে রোগ বালাই ও পোকামকড়ের আক্রমণ প্রচলিত জাতের চেয়ে অনেক কম। প্রতাপ এলাকায় এবারে ৫০ জন কৃষক গড়ে ১০ কাঠা জমিতে এ জাত আবাদ করেছে। তারা ধানে হেক্টরপ্রতি ফলন পেয়েছে সাত টন। 
আলোচকরা আরও জানান, জিংক মানুষের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা, বুদ্ধিমত্তা বিকাশসহ নানাবিধ শারীরবৃত্ত্বীয় প্রক্রিয়ার জন্য অতি প্রয়োজনীয়। এছাড়া জিংক সংক্রামক ব্যাধি ডায়রিয়া, নিউমোনিয়া ও ম্যালেলিয়ায় আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি কমাতে সাহায্য করে।
সমাবেশে হার্ভেস্ট প্লাসের কৃষি গবেষণা ও ডেভেলপমেন্ট কর্মকর্তা জাহিদ হুসাইন, সুখ-এর প্রকল্প সমন্বয়কারী মো. মনিরুজ্জামান, উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা মমতাজ বেগম ও হারুন অর রশীদ তালুকদার এবং এলাকার দেড়শ কৃষক-কিষাণী উপস্থিত ছিলেন। পরে সমাবেশে কৃষকদের মাঝে ধানবীজ সংরক্ষণের জন্য বিশেষ ব্যাগ বিতরণ করা হয়।

সুত্র :  বাসস 

এইবেলা ডট কম/এইচ আর


 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

সম্পাদক : সুকৃতি কুমার মন্ডল 

 খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

+8801711-98 15 52

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2019 Eibela.Com
Developed by: coder71