সোমবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮
সোমবার, ৯ই আশ্বিন ১৪২৫
 
 
নেচে নেচে অস্ত্রোপচার করেন এক নারী চিকিত্‍সক!
প্রকাশ: ০৫:২০ pm ০৬-০৬-২০১৮ হালনাগাদ: ০৫:২০ pm ০৬-০৬-২০১৮
 
এইবেলা ডেস্ক
 
 
 
 


মার্কিন চিকিত্‍সক উইনডেল ডেভিস একটি ক্লিনিক চালান। গান করেন। র‌্যাপও নাচেন। অস্ত্রোপচার করতে করতেই নাচেন। নাচতে নাচতেই ছুড়ি, কাঁচি চালান। সম্প্রতি এমনই একজন নারী র‌্যাপ ডান্সার থুড়ি চিকিত্‍সক পুলিশ কর্তাদের ঘুম কেড়ে নিয়েছেন। তাঁর নামে অভিযোগ ভুরি ভুরি। অভিযোগ করেছেন খোদ রোগীরাই। কে এই চিকিত্‍সক?

আটলান্টায় নিজের ক্লিনিক চালান উইনডেল। পেশায় তিনি একজন ডার্মাটোলজিস্ট বা কসমেটিক সার্জন। রোগীদের ত্বকের কাঁটাছেড়া করে তাঁদের চেহারায় বদল আনাই কাজ উইনডেলের। সম্প্রতি ক্লিনিকের অফিসিয়াল ইউটিউব পেজে বেশ কয়েকটি ভিডিয়ো আপলোড করেছেন উইনডেল। সেখানে দেখা যাচ্ছে, অস্ত্রোপচার করতে করতেই সহকর্মীদের সঙ্গে নাচ, গান করছেন তিনি। হাতে ধরা রয়েছে সার্জারির ছুড়ি, কাঁচি। কখনও 'কাট ইট', আবার কখনও 'ব্রিক হাউস' গানের সঙ্গে কণ্ঠ মেলাতে দেখা গিয়েছে তাঁকে।

এখানেই শেষ নয়, বেশ কয়েকটি ভিডিওতে দেখা গিয়েছে রোগী নগ্ন করে শোয়ানো এবং তাঁকে ঘিরে নানা ভঙ্গিমায় নেচে যাচ্ছেন উইনডেল ও তাঁর সহকর্মীরা। কখনও কখনও তো সার্জারির জন্য প্রয়োজনীয় গ্লাভস এবং অ্যাপ্রনও ঠিকঠাক করে পড়েননি উইনডেল। এই সব ভিডিয়ো দেখেই ঘুম উড়ে গিয়েছে রোগীর আত্মীয়দের। নড়ে চড়ে বসেছে পুলিশও। ইতিমধ্যেই প্রায় ১০০ জন নারীর চিকিত্‍সায় গাফিলতির মামলা দায়ের করে ফেলেছেন উইনডেলের বিরুদ্ধে।

প্রথম অভিযোগ আসে ২০১৬ সালে। বছর চুয়ান্নর ইসিলমা করনেলিয়াস বিয়ের আগে বোটক্স এবং অ্যান্টি এজিং ট্রিটমেন্টের জন্য গিয়েছিলেন উইনডেলের চেম্বারে। অভিযোগ, তাঁকে একপ্রকার জোর করে রাজি করিয়ে লাইপোসাকশনের সার্জারি করে দেন উইনডেল। এবং সার্জারির ক'দিন পরেই হৃদরোগে আক্রান্ত হন ইসিলমা। তবে, ইসিলমার অভিযোগ একপ্রকার উড়িয়েই দিয়েছিলেন উইনডেল। সেই শুরু। তারপর অভিযোগ আসতে শুরু করে আরও নানা জায়গা থেকে। কসমেটিক সার্জারি করতে আসা ডোনা শাহের অভিযোগ ছিল, লাইপোসাকশনের পর তাঁর নানাবিধ শারীরিক সমস্যা দেখা দেয়। একই অভিযোগ করেন মিটজি ম্যাকফারল্যান্ড এবং ক্রিস্টিন ডলিও। তবে, এত কিছুর পরেও নির্বিকার উইনডেল। সব অভিযোগই অস্বীকার করেছেন তিনি।

নি এম/

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
Study in RUSSIA
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : নিন্দ্রা ভৌমিক

খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2018 Eibela.Com
Developed by: coder71