বুধবার, ২১ নভেম্বর ২০১৮
বুধবার, ৭ই অগ্রহায়ণ ১৪২৫
 
 
নড়াইলে ডিবি ও পুলিশের যৌথ অভিযানে ইয়াবা ও ফেনসিডিলসহ গ্রেফতার-২৫
প্রকাশ: ০৮:২৬ pm ০৭-০৬-২০১৮ হালনাগাদ: ০৮:২৬ pm ০৭-০৬-২০১৮
 
নড়াইল জেলা প্রতিনিধি
 
 
 
 


নড়াইল জেলা গোয়েন্দা শাখা (ডিবি) পুলিশ ও নড়াইল সদর থানা পুলিশের চৌকশ সদস্যরা অভিযান চালিয়ে ইয়াবা ও ফেনসিডিলসহ মোট ২৫ জনকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়েছে। গ্রেফতারকৃতদের মধ্যে বেশিরভাগই বিভিন্ন মামলার আসামি। 

বৃহস্পতিবার (৭ জুন) বেলা সাড়ে তিনটার দিকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে নড়াইল জেলা গোয়েন্দা শাখা (ডিবি) পুলিশের পরিদর্শক আমিনুজ্জামানের নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে মুক্তা বেগম (৪৮) নামে এক মাদকসারাজ্ঞীকে গ্রেফতার করে।
 
গ্রেফতারকৃত মুক্ত বেগম নড়াইল সদর উপজেলাধীন আউড়িয়া ইউনিয়নের চিলগাছা রঘুনাথপুর গ্রামের মোস্ত কাজীর স্ত্রী। নড়াইল জেলা গোয়েন্দা শাখা (ডিবি) পুলিশের এসআই নয়ন পাটোয়ারী, এএসআই রাজ্জাক, এএসআই সোহেল, এএসআই আলমগীর, কনস্টেবল ওলিয়ার, আজাদ হুসাইনসহ সঙ্গীয় ফোর্স অভিযান চালিয়ে তাকে নিজ বাড়ি থেকে গ্রেফতার করে। এ সময় তার বাড়িতে তল্লাশি চালিয়ে ২৫ বোতল ফেনসিডিল উদ্ধার করে ডিবি পুলিশের সদস্যরা। 

এদিকে নড়াইল সদর থানা পুলিশ অভিযান চালিয়ে একাধিক মামলার এক আসামিকে গ্রেফতার করেছে। গ্রেফতারকৃত আসামির নাম খাইরুল বিশ্বাস (৩২)। সে নড়াইল সদর উপজেলাধীন আলোকদিয়া গ্রামের নুর মিয়ার ছেলে। তার নামে সাতটি মামলা রয়েছে বলে নড়াইল সদর থানা সূত্রে জানা গেছে এবং গ্রেফতারের সময় তার নিকট থেকে ২০ পিচ ইয়াবাও উদ্ধার করে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা। 

জানা গেছে, বুধবার (৬ জুন) গভীর রাতে নড়াইলের পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম এর নিকট আসা এক গোপন সংবাদের ভিত্তিতে নড়াইল সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ার হোসেন জানান, নড়াইল সদর থানার এএসআই আনিছ ও মনির অভিযান চালিয়ে খাইরুলকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়। গ্রেফতারের সময় খাইরুলের কাছ থেকে ২০ পিচ ইয়াবাও উদ্ধার করে পুলিশ সদস্যরা। গোপন সংবাদের মাধ্যমে জানতে পারেন একাধিক মামলার পলাতক আসামি খাইরুল নিজ এলাকায় অবস্থান করছে এবং মাদক ব্যবসায়ের সাথে জড়িত রয়েছে। তৎক্ষণাৎ তিনি নড়াইল সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ার হোসেনকে বিষয়টি খতিয়ে দেখার নির্দেশ দিলে ওসি নড়াইল সদর থানার এএসআই আনিছ ও মনিরকে ওই এলাকায় যাওয়ার নির্দেশ দেন। নির্দেশনা মোতাবেক চৌকশ দুই পুলিশ অফিসার ওই এলাকায় গিয়ে একাধিক মামলার আসামি খাইরুলকে ২০ পিচ ইয়াবাসহ হাতেনাতে গ্রেফতার করে।

অপরদিকে বুধবার (৬ জুন) রাত থেকে বৃহস্পতিবার সকাল পর্যন্ত নড়াইল জেলার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে বিভিন্ন মামলা ও অপরাধে ২৩ জনকে গ্রেফতার করে নড়াইল জেলা পুলিশ। নড়াইল পুলিশ সুপারের কার্যালয় কর্তৃক প্রদত্ত এক রিপোর্টে জানা যায়, জি.আর মামলায় ১৯ জন, সি.আর মামলায় ২ জন, নিয়মিত মামলায় ১ জন, ৩৪ ধারায় ১ জন আসামিসহ ২৩ জনকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয় নড়াইল জেলা পুলিশের বিশেষ অভিযান পরিচালনাকারী টিম। তবে গ্রেফতারের সময় গ্রেফতারকৃতের নিকট থেকে কোনো অস্ত্র বা মাদকদ্রব্য উদ্ধার করতে পারেনি পুলিশ। সব মিলিয়ে নড়াইল জেলা থেকে বিভিন্ন মামলা ও অপরাধে মোট ২৫ জনকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়েছে নড়াইল জেলা পুলিশের সদস্যরা। 
উল্লেখ্য, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর ঘোষণানুযায়ী নড়াইল জেলাকে মাদকমুক্ত করতে প্রতিনিয়ত বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে আসছেন জেলা পুলিশের বিশেষ অভিযান পরিচালনাকারী টিম। এরই ধারাবাহিকতায় বিভিন্ন মামলায় মোট ২৫ জনকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয় তারা। এ ব্যাপারে নড়াইলের পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন  জানান, নড়াইল জেলাকে অপরাধমুক্ত করতে নড়াইল জেলা পুলিশ দৃঢ়প্রতিজ্ঞ। মাদক, জঙ্গি ও সন্ত্রাসের সাথে সম্পৃক্ত থাকার অপরাধে কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না বলেও তিনি কঠোর হুশিয়ারি প্রদান করেন।

নি এম/উজ্জ্বল

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
Study in RUSSIA
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : নিন্দ্রা ভৌমিক

খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2018 Eibela.Com
Developed by: coder71