শনিবার, ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯
শনিবার, ৪ঠা ফাল্গুন ১৪২৫
 
 
পাওনা টাকা দেওয়ার ছলে ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে হত্যা
প্রকাশ: ০৮:৫৬ pm ৩০-০৪-২০১৮ হালনাগাদ: ০৮:৫৬ pm ৩০-০৪-২০১৮
 
এইবেলা ডেস্ক
 
 
 
 


পাওনা টাকা দেওয়ার কথা বলে মোবাইলে ডেকে নিয়ে এক ব্যবসায়ীকে হত্যা করার অভিযোগ উঠেছে যুবকের বিরুদ্ধে। নিহত নুরুল ইসলাম (৪৫) উপজেলার ধামতী গ্রামের দুধ মিয়ার ছেলে। সে জমি ক্রয় বিক্রয়সহ বিভিন্ন ব্যবসায় জড়িত ছিলেন।

সন্দেহভাজন যুবক রায়হান উদ্দিন একই এলাকার মৃত রোছমত আলীর ছেলে।

রবিবার রাতে ঢাকা মেডিকেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছে। এর আগে শনিবার রাত ১২ টায় কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলার ধামতী গ্রামের মধ্যপাড়ায় ঘটনাটি ঘটেছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শনিবার রাত সাড়ে ১১ টায় নিহত ব্যবসায়ী মো. নুরুল ইসলামকে পাওনা তিন লক্ষ টাকা দেওয়ার কথা বলে মোবাইল ফোনে ডেকে নিয়ে যায় অভিযুক্ত রায়হান উদ্দিন। পরে রাত ১২ টায় ধামতী চৌধুরী পাড়ায় রাস্তার পাশে নুরুল ইসলামকে রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়রা খবর দেয় তার বাড়িতে। খবর পেয়ে তার ছেলে হাসান ও বড় ভাই জাহাঙ্গীর মেম্বার গুরুতর আহত নুরুল ইসলামকে উদ্ধার করে দেবিদ্বার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসে। পরে চিকিৎসকরা তাকে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন। সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে রাতেই ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। রবিবার দুপুর সাড়ে ১১টায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়।

নুরুল ইসলামের ছেলে হাসান জানান, শনিবার রাত ১১টায় রায়হান উদ্দিন নামের স্থানীয় এক লোক পাওনা টাকা দেওয়া কথা বলে বাবাকে ডেকে নেয়, আধা ঘন্টা পরে চৌধুরী পাড়া থেকে ফোন আসে বাবা অসুস্থ বলে। আমি ও আমার চাচা দৌড়ে সেখানে গিয়ে দেখতে পাই রাস্তার পাশে আমার বাবা রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে আছে। বাবার গলা ও পেটসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে কোপানো হলে পেটের ভুড়ি বের হয়ে যায়। রায়হান ও তার লোকজন মিলে বাবাকে কুপিয়েছে বলে বাবা আমাদেরকে জানান।

দেবিদ্বার থানার ওসি মো. মিজানুর রহমান জানান, রাতে খবর পেয়েই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ছুটে যাই। পরে তার অবস্থা খারাপ দেখতে পেয়ে পুলিশের সহযোগিতায় প্রথমে কুমেক হাসপাতালে ও পরে ঢামেক হাসপাতালে পাঠানো হয়। রবিবার দুপুরে তার মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। ঢাকায় ময়নাতদন্ত শেষে লাশ বাড়ি নিয়ে আসা হবে। এ বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

বিডি

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

সম্পাদক : সুকৃতি কুমার মন্ডল 

 খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

+8801711-98 15 52

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2019 Eibela.Com
Developed by: coder71