মঙ্গলবার, ১৯ মার্চ ২০১৯
মঙ্গলবার, ৫ই চৈত্র ১৪২৫
 
 
ফিফা বর্ষসেরা ফুটবলারের লড়াইয়ে মেসি, রোনালদো, নেইমার
প্রকাশ: ০৩:৩৬ pm ২৩-০৯-২০১৭ হালনাগাদ: ০৩:৩৬ pm ২৩-০৯-২০১৭
 
এইবেলা ডেস্ক
 
 
 
 


এবার ফিফা বর্ষসেরা ফুটবলার হওয়ার লড়াই হবে রিয়াল মাদ্রিদ তারকা ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো, বার্সেলোনা তারকা লিওনেল মেসি ও পিএসজি তারকা নেইমারের মধ্যে।

২০১৭ সালের ফিফা বর্ষসেরা ফুটবলার নির্বাচনের জন্য গত আগস্টে ২৪ জনের সংক্ষিপ্ত তালিকা প্রকাশ করে ফিফা। শুক্রবার সেই তালিকা কমিয়ে তিন জনে নামিয়ে আনে বিশ্ব ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা (ফিফা)। এর আগে ২০১৫ সালের বর্ষসেরার লড়াইয়েও তিন জনের সংক্ষিপ্ত তালিকায় ছিলেন মেসি-রোনালদো-নেইমার। ওই বছর পঞ্চমবারের মতো পুরস্কারটি জেতেন লিওনেল মেসি।

উল্লেখ্য, গত নয় বছরে বর্ষসেরা ফুটবলারের পুরস্কার মেসি ও রোনালদো ছাড়া কেউই জিততে পারেনি।এর মধ্যে বার্সেলোনা তারকা পাঁচবার ও রিয়াল মাদ্রিদ ফরোয়ার্ড চারবার জিতেছেন।

এবার যদি মেসি ‘বেস্ট ফিফা মেনস প্লেয়ার’জিততে পারেন তাহলে সবচেয়ে বেশিবার বর্ষসেরা হওয়া রেকর্ড স্পর্শ করবেন। বছর জুড়ে অসাধারণ সাফল্যের কারণে তার সম্ভাবনা বেশি। গত বছর ২০ নভেম্বর থেকে চলতি বছর ২ জুলাই পর্যন্ত খেলোয়াড়দের অর্জন বিবেচনায় পুরস্কারটি দেওয়া হচ্ছে।

আর রোনালদোর ক্লাবের হয়ে গত মৌসুমে উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ও লা লিগা জয়ে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা ছিল। চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ইতিহাসে প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে নকআউট পর্বে ৫০ গোলের মাইলফলক স্পর্শ করেন তিনি। পাশাপাশি নকআউট পর্বে টানা দুই ম্যাচে হ্যাটট্রিক করার কীর্তি গড়েন।

ইউরোপ সেরা এই প্রতিযোগিতার ইতিহাসে প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে এ মৌসুমে ১০০ গোলের মাইলফলকও স্পর্শ করেন রোনালদো। তিনি ফাইনালে দুটিসহ এবারের চ্যাম্পিয়ন্স লিগে সর্বোচ্চ ১২টি গোল করেন।

রোনালদোর চেয়ে মেসির দলগত সাফল্য কম হলেও ব্যক্তিগতভাবে গত মৌসুম দারুণ কাটিয়েছেন। ক্লাব ফুটবল ক্যারিয়ারে ৫০০ গোলের মাইলফলক স্পর্শ করেন মেসি। কাতালান ক্লাবটির সর্বোচ্চ গোলদাতাও আর্জেন্টিনার এই অধিনায়ক।

বর্ষসেরা লড়াইয়ে মেসি-রোনালদোর মতো নেইমারের প্রাপ্তি খুব বেশি না হলেও বার্সেলোনার হয়ে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচগুলোয় পারফরম্যান্স ছিল চমৎকার। চ্যাম্পিয়ন্স লিগের প্রথম লেগে পিএসজির কাছে ৪-০ গোলে হারের পর ফিরতি পর্বে কাতালান ক্লাবটির ৬-১ গোলের রোমাঞ্চকর জয়ের নায়ক ছিলেন এই ব্রাজিলিয়ান খেলোয়ার। নেইমার ওই ম্যাচের শেষ দিকে দুই গোল করার পাশাপাশি শেষ মুহূর্তে সের্হিও রবের্তোকে দিয়ে গোল করান। রেকর্ড ট্রান্সফার ফিতে পিএসজিতে যোগ দিয়েও দারুণ খেলছেন নেইমার।

জাতীয় দলের কোচ, অধিনায়ক ও প্রতিটি দেশের একজন করে সাংবাদিক এবং ফিফা ডটকমে নিবন্ধিত ফুটবলপ্রেমীদের ভোটে বিজয়ী নির্বাচন করা হবে।

২০১০ সাল থেকে ফিফা বর্ষসেরা পুরস্কার ও ফ্রান্স ফুটবলের ব্যালন ডি’অর একীভূত হয়ে ২০১৫ পর্যন্ত ফিফা ব্যালন ডি’অর নামে পুরস্কারটি দেওয়া হয়। তবে গত বছর থেকে ফিফা ও ব্যালন ডি’অর আলাদাভাবে পুরস্কার দেওয়া শুরু করে। ২৩ অক্টোবর লন্ডনে ঘোষণা করা হবে বিজয়ীর নাম।

নি এম/

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

সম্পাদক : সুকৃতি কুমার মন্ডল 

 খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

+8801711-98 15 52

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2019 Eibela.Com
Developed by: coder71