সোমবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮
সোমবার, ৯ই আশ্বিন ১৪২৫
 
 
বাংলাদেশে ধর্ষণ ও সংখ্যালঘু নির্যাতন বন্ধের দাবিতে লন্ডনে মানববন্ধন 
প্রকাশ: ০৮:২৭ pm ২৬-১০-২০১৬ হালনাগাদ: ০৮:৪৭ pm ২৬-১০-২০১৬
 
 
 


প্রবাস ডেস্ক:  বাংলাদেশ ভিত্তিক সামাজিক ও স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন "কনশাস ইয়ুথ ভলন্টিয়র নেটওয়ার্ক( সিভন)"  গত ২৩শে অক্টোবর বুধবারে পূর্ব লন্ডনের আলতাব আলী পার্কে বাঘেরহাটের মোল্লাহাটে গৃহবধূ ধর্ষণ ও সংখ্যালঘু নির্যাতনের প্রতিবাদে মানব বন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশের আয়োজন করে। 

ধর্ষণ ও নির্যাতন বিরোধী নানা ধরনের শ্লোগান সম্বলিত  প্ল্যাকার্ড নিয়ে অংশগ্রহণকারীরা এখানে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন। 

আয়োজক সংগঠন সিভনের আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিষয়ক উপদেষ্টা জনাব অনিন্দ্য অলি বলেন, "সুস্হ সংস্কৃতি বিকাশের ধারা অব্যাহত না থাকা ও মানবিক মূল্যবোধ কমতে থাকায় আমাদের সমাজে সাম্প্রতিক সময়ে এ ধরনের ঘটনা বৃদ্ধি পাচ্ছে। বিচারহীনতার সংস্কৃতিও এধরনের ঘটনা বৃদ্ধির জন্য অনেকাংশেই দায়ী। আমরা অপরাধীর দৃস্টান্তমূলক শাস্তি দাবী করছি যেন অন্যরাও এটি থেকে শিক্ষালাভ করতে পারে।"

কমিউনিটির সুপরিচিত ব্যক্তিত্ব , ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির সাবেক সাধারন সম্পাদক জনাব আনসার উল্লাহ বলেন, দেশে ধর্ষণ ও সংখ্যালঘু নির্যাতন ক্রমাগত বেড়ে চলেছে । এটি একটি সামাজিক ব্যধিতে রুপান্তরিত হচ্ছে তাই অপরাধীকে উপযুক্ত শাস্তি প্রদান নিশ্চিত করতে হবে ও পাশাপাশি এধরনের ঘটনা রোধ করতে সামাজিক আন্দোলন বৃদ্ধি করতে হবে। 

অপর বক্তা শাহরিয়ার বিন আলী এ ঘটনাকে জঘন্যতম ঘটনা আখ্যা দিয়ে ঘটনার সুষ্ঠ তদন্ত সাপেক্ষে অপরাধীকে দ্রুত গ্রেফতার ও বিচারের আওতায় নিয়ে আসার দাবী জানান। 

'সিভনের 'প্রতিষ্ঠাতা ও মানবাধিকার কর্মী জনাব

 মো. সেলিম মাহমুদ বলেন, "বাঘেরহাটের ঘটনাটি আসলে সারাদেশেরই একটি চিত্র, প্রতিনিয়তই আমরা এধরনের ঘটনা ঘটতে দেখছি, এসব ক্ষেত্রে অপরাধী আইনের নানা ফাঁক গলে বেরিয়ে যায়, পুলিশ আন্তরিকভাবে তদন্ত সম্পন্ন করেনা, ভিকটিম বিচার চাইতে গেলে নানাভাবে হয়রানির শিকার হয়।

রাষ্ট্র ভিকটিমের পাশে শক্তভাবে দাঁড়ায় না।ফলে অপরাধী পার পেয়ে যায় এবং এধরনের ঘটনা বৃদ্ধি পেতে থাকে। আমরা আজকে এই সমাবেশের মাধ্যমে সরকারের কাছে আবেদন করব সংখ্যালঘু নির্যাতন বন্ধে ও ধর্ষণের উপযুক্ত বিচারের ক্ষেত্রে  সরকার যেন আন্তরিক হয়।"

প্রতিবাদ সভায় অন্যান্যদের মধ্য বক্তব্য রাখেন সাংস্কৃতিক কর্মী সিনথিয়া আরেফিন, নাসরীন আহমেদ মন্জুরী, উদয় শংকর দূর্জয় , রাসেল শাহরিয়ার, ওমর ফারুক, এম.ডি মোমিন মিয়া, সুমন দাশ নীল, ফজলুর রহমান, ইমরুল হক, আসাদ, মাওলানা শামীম, মানসুর আহমেদ প্রমূখ। 

উল্লেখ্য সম্প্রতি বাহেরহাট জেলার মোল্লাহাটে এক গৃহবধুকে ১৫ দিন আটকে রেখে ক্রমাগত ধর্ষণ ও নির্যাতন করে প্রতিবেশী সোবহান মোল্লা। এছাড়াও তলোয়ার দিয়ে কুপিয়ে পা জখম করার পরও চিকিৎসার সুযোগ না দিয়ে বরং ১৫ দিন আটকে রেখে উপর্যুপরি ধর্ষণ করে  লোকটি। ঘটনাটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যাপক সমালোচিত হয় এবং দেশে বিদেশে নানা জায়গায় মানুষ এ ঘটনার নিন্দা জানান।

এইবেলাডটকম/সেলিমমাহমুদ/এসবি

 

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
Study in RUSSIA
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : নিন্দ্রা ভৌমিক

খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2018 Eibela.Com
Developed by: coder71