মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০১৯
মঙ্গলবার, ১লা শ্রাবণ ১৪২৬
 
 
বান্দরবানে বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের মহাপিণ্ড দান উৎসব পালিত 
প্রকাশ: ০৩:০৪ pm ০৪-১১-২০১৭ হালনাগাদ: ০৩:০৪ pm ০৪-১১-২০১৭
 
বান্দরবান প্রতিনিধি:
 
 
 
 


বান্দরবানে বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনা ও ধর্মীয় ভাবগাম্ভির্যের মধ্য দিয়ে পালিত হচ্ছে বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের অন্যতম ধর্মীয় উৎসব মহাপিণ্ড দান (কঠিন চীবর দান)।

শনিবার সকাল ৯টায় এ উৎসব উপলক্ষে রাজগুরু বৌদ্ধ বিহার প্রাঙ্গন থেকে একটি র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিটি শহরের গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিণ করে করুণাপূর বৌদ্ধ বিহারে গিয়ে শেষ হয়। এসময় বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের নারী-পুরুষরা কল্পতরু ও চীবর নিয়ে র‌্যালিতে অংশ নেন।

চীবর দানোৎসবে অংশ নেন পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং এম.পি, বান্দরবান পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ক্য শৈ হ্লা, জেলা প্রশাসক দিলীপ কুমার বণিক, পুলিশ সুপার সঞ্জিত কুমার রায়, পার্বত্য প্রতিমন্ত্রীর সহধর্মীনি মে হ্লা চিংসহ প্রশাসনের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

এসময় প্রায় ৫ শতাধিক ভিক্ষুকে চীবর, খাদ্য ও নগদ অর্থসহ আনুষাঙ্গিক বিভিন্ন সামগ্রী দান করেন অতিথিরা।

বান্দরবানে মহাপিণ্ড দান উৎসবএর আগে শহরের রাজগুরু ক্যাং ও করুণাপুর বৌদ্ধ বিহারে চীবর দান অনুষ্ঠানে ধর্মীয় দেশনা দেন বৌদ্ধ ধাতু জাদি’র (স্বর্ণমন্দির) প্রতিষ্ঠাতা উ পঞঞ্যা জোত থেরো (উচহ্লা ভান্তে)।

এসময় তিনি কঠিন চীবর দান সম্পর্কে দায়ক দায়িকাদের উদ্দেশে ধর্মীয় বাণীতে বলেন, আড়াই হাজার বছর আগে গৌতম বুদ্ধের কাছে মহাপূণ্যবতী বিশাখা চীবর দান করেছিলেন। জগতের সব রকম দানের মধ্যে কঠিন চীবর দান সর্বোত্তম। দানের দ্বারা চিত্ত বিশুদ্ধ হয় ও মোহমুক্তি ঘটে। সব্বে সত্তা সুখীতা হোনতো, জগতে সকল প্রাণী সুখী হোক ও সকল প্রকার দুঃখ থেকে মুক্ত হোক।

এদিকে এ উৎসবকে ঘিরে শহরের ক্যাংগুলো সাজানো হয়েছে বর্ণিল সাজে। শহরের বিভিন্ন জায়গায় চীবর দান উৎসব উপলক্ষে চলছে ধর্মীয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও আলোচনা সভা। পুরো নভেম্বর মাস জুড়ে চলবে এ উৎসব। নভেম্বর মাসের প্রথম থেকে শহরের রাজগুরু ক্যাং, করুণাপুর বৌদ্ধ বিহার, রামজাদী ও রোয়াংছড়ি বাস স্টেশন বৌদ্ধ অনাথালয় মন্দিরে অনুষ্ঠিত হচ্ছে কঠিন চীবর দান।

আরডি/

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

সম্পাদক : সুকৃতি কুমার মন্ডল 

 খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

+8801711-98 15 52

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2019 Eibela.Com
Developed by: coder71