রবিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮
রবিবার, ৮ই আশ্বিন ১৪২৫
 
 
রংপুরে লাভ জিহাদের ফাঁদে নিখোঁজ দিতি রাণী ও চন্দনা রাণী
প্রকাশ: ০৮:১২ pm ০৭-০৭-২০১৮ হালনাগাদ: ০৮:১২ pm ০৭-০৭-২০১৮
 
এইবেলা ডেস্ক
 
 
 
 


রংপুর জেলার মিঠাপুকুর উপজেলার চিথলী মধ্যপাড়া গ্রামের দুই হিন্দু কিশোরীকে স্থানীয় মুসলিম ছেলেরা দলবদ্ধভাবে প্রেমের ফাঁদে ফেলে অপহরণ করে এবং দুই কিশোরীর পরিবারকে মেরে ফেলাসহ অন্যান্য হুমকি দেওয়ার তথ্য পাওয়া গিয়েছে। 

অপহৃতরা হলেন, জেলার মিঠাপুকুর উপজেলার বিধুর চন্দ্র বর্মনের কন্যা দিতি রাণী ও রংপুর সদর উপজেলার ঠাকুরপাড়া গ্রামের পার্শ্ববতী ঝাড়পাড়ার দিনেশ চন্দ্রের কন্যা চন্দনা রাণী।

এ বিষয় মিঠাপুকুর থানা, রংপুর সদর থানা ও গঙ্গাচড়া থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের আওতায় পৃথক পৃথক মামলা হয়েছে বলে স্ব স্ব অফিসার ইনর্চাজগণের নিকট জানা যায়। 

রংপুর জেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে তথ্য পাওয়া গিয়েছে যে, প্রত্যেক হিন্দু পরিবার তাদের কন্যা সন্তানদের নিয়ে চিন্তিত ও নিরাপত্তাহীনতায় রয়েছেন। 

নিখোঁজ দিতি রাণীর পিতা বিধুর চন্দ্রের দাখিলকৃত এজাহার মর্মে ও জিজ্ঞাসায় জানা যায় যে, চিথলী দক্ষিণপাড়া গ্রামের মৃতঃ কালাম মিয়া ছেলে মোঃ মেহেদী হাসান(২২), মোঃ শৌভিক মিয়া(২১), মোঃ জয় মিয়া(২১) গং দীর্ঘদিন হতে দিতির দিকে কৃ-দৃষ্টি দেয় এবং ২ জুলাই অপকৌশলে দলবদ্ধভাবে অপহরণ করেন।

জানা যায়, মেহেদী হাসানের চাচা ও পরিবার অপহরনের ঘটনা স্বীকার করে বলেন, দিতি রাণী আমাদের বাড়ীতে হেফাজতে আছে এবং কিছুক্ষনের মধ্যে ফেরত দিবে বলে প্রতিশ্রুতি দেয়; কিন্তু কিছু সময় অতিক্রম করার পর আসামীগণের পরিবার মামলার বাদী বিধুর চন্দ্র ও পরিবারকে কোন রকম মামলা না করা এবং জানে শেষ করার বিভিন্ন ধরনের হুমকি দেয়।

অপরদিকে চন্দনা রাণীর পিতা দীনেশ চন্দ্র রায়ের দাখিলকৃত এজাহার মর্মে ও জিজ্ঞাসায় জানা যায় যে, চন্দনা রাণী পাগলাপীর স্কুল এন্ড কলেজের ৯ম শ্রেণীর শিক্ষার্থী। গঙ্গাচড়া উপজেলার হরকলি ফকিরপাড়া গ্রামের মৃত জহির উদ্দিনের ছেলে মিলন মিয়া (২৮) ও উল্লেখিত গং ১ জুলাই তারিখে চন্দনা রাণীকে অপকৌশলে মাইক্রোবাস যোগে জোরপূর্বক অপহরণ করেন। মামলার বাদী চন্দনা রাণীর পিতা দীনেশ চন্দ্র আসামীগণের পরিবারের নিকট কথা বলতে গেলে তাকে অত্যন্ত ভয়ভীতি সহ জাতি ধর্ম উল্লেখ করে বিভিন্ন হুমকি দেয় আসামীগণের পরিবার।


এলসিবি/বিডি
 

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
Study in RUSSIA
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : নিন্দ্রা ভৌমিক

খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2018 Eibela.Com
Developed by: coder71