রবিবার, ১৮ নভেম্বর ২০১৮
রবিবার, ৪ঠা অগ্রহায়ণ ১৪২৫
 
 
রাজবন বিহারে ৪৪তম দানোত্তম কঠিন চীবর দান শুরু
প্রকাশ: ০২:১০ pm ০২-১১-২০১৭ হালনাগাদ: ০২:১০ pm ০২-১১-২০১৭
 
রাঙামাটি প্রতিনিধি:
 
 
 
 


পার্বত্য চট্টগ্রামে বসবাসরত বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীদের অন্যতম তীর্থস্থান রাঙামাটির রাজবন বিহার। বৃহস্পতিবার দুপুর থেকে বেইন কর্মীদের পঞ্চশীল গ্রহণ ও বেইন ঘর উদ্বোধনের মধ্য দিয়ে শুরু হচ্ছে দুই দিনব্যাপী ৪৪তম দানোত্তম কঠিন চীবর দান অনুষ্ঠান। 

রাঙামাটি রাজবন বিহারের দায়িত্বশীল সূত্র জানায়, মহামতি গৌতম বুদ্ধের জীবদ্দশায় তার প্রধান সেবিকা মহাপুণ্যবতী বিশাখা প্রবর্তিত নিয়মে রাজবন বিহারে এবার ৪৪তম কঠিন চীবর দানোৎসব অনুষ্ঠিত হচ্ছে। 

রাঙামাটি রাজবন বিহারে সর্ববৃহৎ পরিসরে লাখো মানুষের উপস্থিতিতে অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে এই চীবর দান অনুষ্ঠান। কঠিন চীবর দান অনুষ্ঠান মূলত: বৌদ্ধ ধর্মালম্বীদের অন্যতম প্রধান ধর্মীয় উৎসব হলেও এখন পরিনত হয়েছে সার্বজনীন উৎসবে। ধর্মীয় সব আনুষ্ঠানিকতার পাশাপাশি রাজবন বিহারে চীবর দান অনুষ্ঠান ঘিরে সব ধর্মালম্বী লোকজনের সমাগম ঘটে। 

চাকমা সার্কেল চিফ ব্যারিস্টার দেবাশিষ রায় বেইন ঘর ও সুতা কাটার কার্যক্রমের উদ্বোধন করবেন। এরপর শুরু হবে ২৪ ঘণ্টার চীবর প্রস্তুতের আনুষ্ঠানিকতা। প্রায় দু’শো বেইনে ৬ শতাধিক দায়ক-দায়িকা অংশ নেয় চীবর প্রস্তুতির কাজে। সুতা সিদ্ধ ও রং করা, সুতা টিয়ানো, সুতা শুকানো, সুতা তুম ও নলীতে ভরা, বেইন টানা বেং বেইন বুননের মধ্য দিয়ে বৃহস্পতিবার সারারাত অতিক্রম করে দায়ক-দায়িকারা। 

শুক্রবার সকাল ৬টা থেকে ১১টা পর্যন্ত চলবে চীবর প্রস্তুত। আর এভাবেই ২৪ ঘণ্টার মধ্যে প্রস্তুত করা হয় এ পূর্ণময় চীবর, যা বৌদ্ধ ভিক্ষুদের পরিধেয় বস্ত্র হিসেবে ব্যবহার করা হয়। 

বৌদ্ধ ধর্মীয় শাস্ত্র মতে, গৌতম বুদ্ধের অনুসারী মহা উপাসিক বিশাখা কতৃর্ক প্রবর্তিত রীতি অনুসারে এ চীবর প্রস্তত কষ্টদায়ক এবং কঠিন হলেও এ চীবর প্রস্তুত করে তা ভিক্ষু সংঘের হাতে তুলে দেওয়া সব দানের মধ্যে উত্তম দান অধিক পূণ্যময়।

বাংলাদেশে মহাউপাসিকা বিশাখা কতৃর্ক প্রবর্তিত রীতি অনুসরণে চীবর দান অনুষ্ঠান খুব একটা না হলেও ১৯৭৭ সাল থেকে রাঙামাটি রাজবন বিহারে শ্রীমৎ সাধনানন্দ মহাস্থবির বনভন্তে বিশাখা প্রবর্তিত রীতি।

আরডি/

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
Study in RUSSIA
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : নিন্দ্রা ভৌমিক

খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2018 Eibela.Com
Developed by: coder71