বৃহস্পতিবার, ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯
বৃহঃস্পতিবার, ৯ই ফাল্গুন ১৪২৫
 
 
রাহুলের প্রধানমন্ত্রী হওয়ার ঘোষণাকে তীব্র আক্রমণ মোদীর
প্রকাশ: ০৩:৪৫ pm ০৯-০৫-২০১৮ হালনাগাদ: ০৩:৪৫ pm ০৯-০৫-২০১৮
 
এইবেলা ডেস্ক
 
 
 
 


কংগ্রেসকে ‘ডিল পার্টি’বলে কটাক্ষ করে নরেন্দ্র মোদী বললেন, কংগ্রেসকে কর্নাটক থেকে বিদেয় করার সময় হয়েছে।

১২ মে কর্নাটক বিধানসভা নির্বাচনে ভোটগ্রহণের দিন এগিয়ে আসার সঙ্গে সঙ্গে সুর চড়াচ্ছে কংগ্রেস, বিজেপি দুই শিবিরই। আজ বেঙ্গালুরুর কাছে বাংরাপেটের জনসভায় প্রধানমন্ত্রী বলেন, কংগ্রেসি সংস্কৃতি, সাম্প্রদায়িকতা, জাতপাত, অপরাধ, দুর্নীতি, কন্ট্র্যাক্ট সিস্টেম, এই ৬টি সি- মিলে কর্নাটকের ভবিষ্যত ধ্বংস করে দিচ্ছে। ওদের হাত থেকে মুক্তি চাই।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী সোনিয়া গান্ধীকে নিশানা করে বলেন, মনমোহন সিংহ প্রধানমন্ত্রী থাকার সময় রিমোট কন্ট্রোল থাকত সোনিয়ার হাতে। কিন্তু মোদী সরকারের চার বছরের শাসনে রিমোট কন্ট্রোল রয়েছে দেশবাসীর হাতে।

নরেন্দ্র মোদী আরো বলেন, কংগ্রেস ডিল ছাড়া কিছুই বোঝে না। এটা আমার কথা নয়। কংগ্রেসের এমপি তথা কর্নাটকের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বীরাপ্পা মইলিই এটা বলেছেন। দলের প্রার্থীপদের টিকিট ‘বিক্রি’ হচ্ছিল। তিনি বলেছিলেন, কংগ্রেসকে ‘টাকাপয়সা সংক্রান্ত ঝামেলা’ মেটাতে হবে। ডিল করে টিকিট বিক্রির জন্য তিনি পূর্তমন্ত্রীকে দায়ী করেছিলেন।

জনসভায় মোদী কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধীর মঙ্গলবার প্রধানমন্ত্রী হওয়ার ঘোষণাকেও কটাক্ষ করেন। রাহুল প্রকাশ্যে মঙ্গলবার ঘোষণা করেছেন, ২০১৯-এ কংগ্রেস ভোটে জিতলে তিনি কেন প্রধানমন্ত্রী হতে পারেন না? এজন্য নাম না করে তাঁকে তীব্র আক্রমণ করে মোদী বলেন, মঙ্গলবার কর্নাটক ও ভারতের রাজনীতিতে একটা ঘটনা ঘটেছে। আচমকা একজন ঘোষণা করেছেন, প্রধানমন্ত্রী হচ্ছেন। লাইনে থাকা বাকিদের, শরিকদের তোয়াক্কা করলেন না। ৪০ বছর ধরে দাঁড়িয়ে আছেন, এমন নেতাও আছেন। কিন্তু উনি হঠাৎ এসে বালতি রেখে বললেন, আমি প্রধানমন্ত্রী হচ্ছি। কী করে কেউ নিজেকে আমি প্রধানমন্ত্রী বলে দিতে পারেন! একে ঔদ্ধত্য ছাড়া আর কী বলা যায়? এই নামদার নিজের শরিকদের ভরসা করেন না, কংগ্রেসের অভ্যন্তরীণ গণতন্ত্র নিয়েও মাথা ঘামান না, ওনার ঔদ্ধত্য সপ্তমে চড়েছে। উনি ২০১৯-এ প্রধানমন্ত্রী হবেন, বলে দিলেন। দেশবাসী কি এমন অপরিণত নামদার নেতাকে কখনও মেনে নেবেন?

নি এম/

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

সম্পাদক : সুকৃতি কুমার মন্ডল 

 খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

+8801711-98 15 52

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2019 Eibela.Com
Developed by: coder71