সোমবার, ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯
সোমবার, ৬ই ফাল্গুন ১৪২৫
 
 
রিও অলিম্পিকের বর্ণিল সমাপনী
প্রকাশ: ০৯:৩৭ am ২২-০৮-২০১৬ হালনাগাদ: ০৯:৩৯ am ২২-০৮-২০১৬
 
 
 


স্পোর্টস ডেস্ক: বর্ণিল আয়োজনে পর্দা নামল শতাব্দী প্রাচীন ‘দ্য গ্রেটেস্ট শো অন আর্থ’ অলিম্পিক গেমসের। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের মতই সমাপনীতেও ব্রাজিল দেখিয়ে দিল আয়োজন কাকে বলে। রিও ডি জেনেইরোর বিখ্যাত মারাকানা স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ সময় আজ ভোর পাঁচটায় শুরু হয়ে প্রায় দুই ঘণ্টা ধরে চলে এই সমাপনী অনুষ্ঠান। যার প্রতিটি মুহূর্তে ছিল উৎ​সব-আনন্দ আর রঙ্গের খেলা।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

লাতিন আমেরিকায় প্রথমবারের মতো এই বিশ্ব আসর বসে ব্রাজিলে। গত ৫ আগস্ট রিও ডি জেনিরোর মারাকানা স্টেডিয়ামে জমকালো উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে শুরু হয় ‘গ্রেটেস্ট শো অন আর্থের’। বৃষ্টি উপেক্ষা করেই বর্ণিল হয়ে উঠে উৎসবের দেশ ব্রাজিলের রাজধানী রিও। জাতীয় পতাকা বহনকারীরা-ও এই উৎসবে আলাদা-আলাদাভাবে নিজেদের টিমের সঙ্গে পতাকা নিয়ে যাননি। বরং সকল পতাকা বহনকারীরা একসঙ্গে একটি টিম হিসেবে এসেছেন। বলা হচ্ছে, ‘টুগেদারনেস’ বা যূথবদ্ধতার প্রতীক হিসেবেই করা হয়েছে এই আয়োজন।

৩০৭টি সোনার পদকের জন্য লড়েছে ২০৭টি দেশ। কমপক্ষে একটি করে সোনা জিতেছে এমন দেশের সংখ্যা ৫৯টি। ৪৬টি সোনাসহ মোট ১২১টি পদক জিতে রিও অলিম্পিকের শীর্ষে যু্ক্তরাষ্ট্র। দ্বিতীয় এবং তৃতীয় স্থানে থাকা চীন ও গ্রেট ব্রিটেন অনেক পিছিয়ে। এবারও অনেক আশা জাগিয়ে অলিম্পিকে অংশ নিলেও কোন পদকের দেখা পায়নি বাংলাদেশের অ্যাথলেটরা।

রিও অলিম্পিকের শেষ দিনে পুরুষদের ম্যারাথন জিতেছেন কেনিয়ার ইলিউড কিপচোগ। মোট দুই ঘণ্টা ৮ মিনিট ৪৪ সেকেন্ড সময় নিয়েছেন ৩১ বছর বয়সী এই কেনিয় তারকা। ম্যারাথনে দ্বিতীয় হয়েছেন ইথিওপিয়ার ফেয়িসা লিলেসা। আর তৃতীয় হয়ে ব্রোঞ্জ জিতেছেন অ্যামেরিকার গেলেন রূপ্য।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

এবারের গেমসে ফুটবল বিশ্বের সম্রাট ব্রাজিল অলিম্পিক ফুটবলে প্রথমবারের মতো জিতে নিয়েছে সোনা। জীবনের শেষ অলিম্পিকে সোনা জয়ের ইতিহাস গড়েছেন জলদানব মাইকেল ফেলপস। আর ‘ট্রেবল ট্রেবল’ জিতে নিজেকে কিংবদন্তীর কাতারে নিয়ে গেছেন ‘জ্যামাইকান টর্নেডো’ ট্র্যাকের রাজা উসাইন বোল্ট। এবারই প্রথম শরণার্থী দল অংশ নিয়েছিল অলিম্পিকে। মেয়েদের হকিতে প্রথমবারের মত কোন সমকামী দম্পতি অংশগ্রহণ করে সোনা জিতে নেয়।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

অসংখ্য নতুন ইতিহাসের মাঝেও ছোটখাট বিভিন্ন ঘটনায় দাগ লেগেছে রিও গেমসে। মিথ্যা অভিযোগ আনায় গ্রেপ্তার করা হয়েছিল তিন মার্কিন সাঁতারুকে। টিকিট জালিয়াতির অভিযোগে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল দশ অজি অ্যথলেটকে। অর্থনৈতিক মন্দায় জর্জরিত ব্রাজিলের জনগন অলিম্পিককে মোটেও মন থেকে গ্রহণ করেনি। তবু আয়োজনের বাহুল্যে চোখ ধাঁধিয়ে গেছে সারা বিশ্বের। সমাপনী দিনে রিও আসরের শেষে পরবর্তী আয়োজনের জন্য টোকিওর গভর্নরের হাতে আনুষ্ঠানিকভাবে তুলে দেওয়া হয় অলিম্পিকের পতাকা। পরবর্তী টোকিও অলিম্পিক অনুষ্ঠিত হবে ২০২০ সালে।

 

এইবেলাডটকম/পিসি

 

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

সম্পাদক : সুকৃতি কুমার মন্ডল 

 খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

+8801711-98 15 52

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2019 Eibela.Com
Developed by: coder71