রবিবার, ২৪ মার্চ ২০১৯
রবিবার, ১০ই চৈত্র ১৪২৫
 
 
হয়রানিমূলক মামলা থামছে না ৫৭ ধারার প্রয়োগ বন্ধে নির্দেশনা দিন
প্রকাশ: ০৩:০৬ pm ১৪-০৬-২০১৭ হালনাগাদ: ০৩:১৩ pm ১৪-০৬-২০১৭
 
 
 


আইন : বিএনপি-জামায়াত আমলে প্রণীত তথ্যপ্রযুক্তি আইনের বিতর্কিত ৫৭ ধারা বাতিলে সরকার ও বিরোধী দলের মধ্যে ‘ঐকমত্য’ প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।

আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বছরখানেক আগে আশ্বস্ত করেছিলেন যে প্রস্তাবিত ডিজিটাল আইনের মাধ্যমে ৫৭ ধারাটি বদলে দেওয়া হবে। সম্প্রতি তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেছেন, ৫৭ ধারার আপদ বিদায় করা হবে। এমনকি বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া তাঁর ভিশন ২০৩০-এ নির্দিষ্টভাবে ৫৭ ধারা বাতিলের অঙ্গীকার করেছেন। অথচ এমন একটি আইনে মামলার ঘটনা অব্যাহতভাবে ঘটেই চলেছে।

আমরা মনে করি, অনেকের মধ্যে নির্বিচারে ৫৭ ধারার আশ্রয় নেওয়ার যে বিপজ্জনক ঝোঁক তৈরি হয়েছে, তার দায় ক্ষমতাসীন দলের ওপরও বর্তায়। ক্ষমতায় আসার আগে আওয়ামী লীগ আইনটি বাতিল করার প্রতিশ্রুতি দিলেও তা করেনি। বরং শাস্তির মেয়াদ বাড়িয়ে অপরাধকে জামিন অযোগ্য করেছে। অনেক সময় সরকার দেশ পরিচালনার দোহাই দিয়ে কাছাকাছি সময়ে সংসদ অধিবেশন থাকা সত্ত্বেও অধ্যাদেশের মাধ্যমে দেশবাসীর ওপর নতুন আইন চাপিয়ে দেয়। কিন্তু নাগরিক অধিকার রক্ষার স্বার্থে কোনো কালাকানুন বাতিলের প্রয়োজনীয়তা স্বীকার করলেও তাদের সে ধরনের উদ্যোগ নিতে দেখা যায় না। বাক্‌স্বাধীনতার মতো গণতন্ত্রের একটি মৌলিক স্তম্ভকে সুরক্ষা দেওয়ার প্রশ্ন রয়েছে এমন একটি বিষয়ে সরকারের ঔদাসীন্য গ্রহণযোগ্য নয়। 

হবিগঞ্জে দুজন সাংবাদিকের নামে ৫৭ ধারায় অর্ধ ডজন মামলা চলমান থাকতে নতুন করে একটি দৈনিকের সম্পাদককে জেলে পাঠানো হয়েছে ৫৭ ধারায় মামলা করে। ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস দেওয়ার পরিপ্রেক্ষিতে শিক্ষাবিদ-গবেষক আফসান চৌধুরীকে হাইকোর্ট থেকে আগাম জামিন নিতে হয়েছে। এর আগে ছাত্র ইউনিয়নের চার কর্মীর বিরুদ্ধেও একই আইনে মামলা করা হয়েছে, যার একজনের বয়স আঠারো বছরের কম। 

আমাদের দাবি, মন্ত্রীদের প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী বিতর্কিত বিধানাবলি পুরোপুরি বাতিল করা হোক। বিশেষ করে ৫৭ ধারার প্রয়োগ বন্ধে অবিলম্বে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় পরিপত্র জারি করে সেই প্রক্রিয়া শুরু করতে পারে। ভারতে আইসিটি অ্যাক্টের বিতর্কিত ধারার (৫৭ ধারার মতো বিধান তাদের আইনে কিছুদিন ছিল) প্রয়োগ বাতিল করার আগে এভাবে পরিপত্র জারি করা হয়েছিল। প্রথম আলো।

এইবেলাডটকম/ আরডি

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

সম্পাদক : সুকৃতি কুমার মন্ডল 

 খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

+8801711-98 15 52

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2019 Eibela.Com
Developed by: coder71