বুধবার, ২৪ এপ্রিল ২০১৯
বুধবার, ১১ই বৈশাখ ১৪২৬
সর্বশেষ
 
 
৫০০০ বছরের পুরানো চিকিৎসায় সমস্ত রোগ সারবে
প্রকাশ: ০৩:২৩ pm ২০-০১-২০১৮ হালনাগাদ: ০৩:২৩ pm ২০-০১-২০১৮
 
এইবেলা ডেস্ক
 
 
 
 


আধুনিক চিকিৎসা বিজ্ঞানের কোপে পড়ে হারিয়ে গেছে আয়ুর্বেদীয় চিকিৎসা। খরচ অনেক বেশি হলেও আলোপ্যাথির দিকেই
মানুষ ঝুঁকেছে।

ফলত যে চিকিৎসা মূল থেকে রোগকে বিনষ্ট করে তা হারিয়ে গেছে। ৫০০০ বছরের পুরনো চিকিৎসা শাস্ত্রকে ফেরানোর চেষ্টায় নামছেন আয়ুর্বেদ চিকিৎসকরা।

অখিল ভারতীয় বিদ্যার্থী পরিষদ সম্প্রতি একটি আয়ুর্বেদীয় সেমিনারের আয়োজন করে। সেখানেই দুই চিকিৎসক অসিত পাঁজা, শিশির প্রসাদ পাঁচ হাজার বছর আগের পুরনো আকুপাংচার নিয়ে আলোচনা করলেন।

অসিত পাঁজা জানিয়েছেন, আয়ুর্বেদের অঙ্গ আকুপাংচারের কার্যকরিতাও প্রচুর। এটা মানুষ ভুলে গিয়েছে। কিন্তু এটা হওয়া উচিৎ নয়। এটিকে বাংলা তথা বিশ্বের বুকে ফেরানোর একটা চেষ্টা করছি।

মানুষের শরীরের স্নায়ু ব্যবস্থাকেই কাজে লাগায় আকুপাংচার। শিশির প্রসাদ জানিয়েছেন, পায়ের কোনও পুরনো ব্যথা যেমন সারাতে পারে এই চিকিৎসা। তেমন হৃদযন্ত্রে কোনও সমস্যা দেখা দিলেও ঠিক করতে পারে এই চিকিৎসা।

অসিত পাঁজা জানিয়েছেন, আমি বহু বছর ধরে এই চিকিৎসা করছি, বিদেশে ব্যাপক চাহিদা রয়েছে। কিন্তু মূল বাংলা থেকেই এর যোগ ছিঁড়ে গিয়েছে। নার্ভের অংশগুলিতে চাপ দেওয়া হয়। যারা এই চিকিৎসা করেন তারা মানব শরীরের ভিতরের প্রত্যকটি অংশকে খুব ভালো করে চেনেন। শরীরের এক অংশের নার্ভের সঙ্গে অপরটির যোগ রয়েছে। কোথায় চাপ দিলে কোথাকার ব্যথা ঠিক হতে পারে সেটা তারা জানেন। সেভাবেই কাজ করে আকুপাংচার।

ডাক্তার নুপুর বিশ্বাস জানিয়েছেন, ‘পুরোপুরিভাবে পক্ষঘাতে শরীরের অঙ্গপ্রত্যঙ্গ নাড়ানোর ক্ষমতা হারানোরাও এ চিকিৎসায় সম্পূর্ণ সুস্থ হয়ে উঠেছেন। মাত্র দুই মিনিটে বেশ কয়েক দিন ধরে বিরক্ত করতে থাকা ব্যথা সারিয়ে দেওয়া সম্ভব হয়। পায়ের কোনও নার্ভ চেপে হাতের কোনও অংশের ব্যথাও ঠিক করে দেয়া সম্ভব। ‘

সূত্র : কলকাতা টুয়েন্টিফোর

নি এম/

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

সম্পাদক : সুকৃতি কুমার মন্ডল 

 খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

+8801711-98 15 52

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2019 Eibela.Com
Developed by: coder71