শনিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৮
শনিবার, ৩রা অগ্রহায়ণ ১৪২৫
 
 
জাতীয় সংসদ নির্বাচনে কে পাবেন আওয়ামী লীগের মনোনয়ন
প্রকাশ: ০৬:৪৬ pm ১৯-০৭-২০১৭ হালনাগাদ: ০৬:৪৬ pm ১৯-০৭-২০১৭
 
মিজানুর, নবিগঞ্জ প্রতিনিধি :
 
 
 
 


আসন্ন জাতীয় নির্বাচন এখনও অনেক দূর। কে পাবেন মনোনয়ন, কে পাবেন না- তা নিয়ে রয়েছে প্রশ্ন। তারপরও হবিগঞ্জ জেলায় ১ আসনের সম্ভাব্য  প্রার্থী এখনই নেমে পড়েছেন নির্বাচনী প্রচারণায়। নির্বাচনকে কেন্দ্র করে তারা বিভিন্ন সভা করছেন। স্থানীয় ভোটারদের সাথে যোগাযোগ রক্ষা করছেন। নেতাকর্মীদেরও নির্বাচনের প্রস্তুতি স্বরূপ প্রচারণা চালানোর নির্দেশ দিচ্ছেন ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে।  

জাতীয় সংসদ নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন পেতে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশীদের ব্যাপক দৌড়ঝাঁপ চলছে। দলের প্রভাবশালী মহলে জোর লবিং-তদবিরে নেমেছেন এসব সম্ভাব্য প্রার্থী। বিশেষ করে নতুন ও তরুণ প্রজন্মের মনোনয়ন প্রত্যাশীরা মনোনয়ন সংশিষ্ট নেতাদের বাসা ও অফিসে আসা-যাওয়া শুরু করেছেন। জাতীয় সংসদের ৩০০ আসনের মধ্যে হবিগঞ্জ জেলার চারটি আসন বরাবরই ছিল আওয়ামী লীগের দখলে। তবে একটি আসনে বেশ কয়েকবার ব্যতিক্রমও ঘটেছে। 

আওয়ামী লীগের দুর্গ ভেদকারী এ আসনটি হচ্ছে হবিগঞ্জ-১ (নবীগঞ্জ-বাহুবল) আসন। আওয়ামী লীগের প্রার্থী হতে চাচ্ছেন অন্তত পাঁচজন। তারা হলেন আওয়ামী লীগের সংরক্ষিত মহিলা আসনের এমপি আমাতুল কিবরিয়া চৌধুরী কেয়া, হবিগঞ্জ জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি ডা. মুশফিক হোসেন চৌধুরী, দেওয়ান  মিলাত গাজী, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটি সদস্য মুকিত চৌধুরী ও নবীগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট আলমগীর হোসেন চৌধুরী। 

ইতোমধ্যেই আওয়ামী লীগ নেতারা নানান কৌশলে মাঠে নেমেছেন এবং নির্বাচনি প্রস্তুতি নিয়ে কাজ করছেন। বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য মুকিত চৌধুরী বলেন, ‘জনগণের জন্য রাজনীতি করি। আমি আমার সংগঠনের দায়িত্ব পাওয়ার পর থেকেই বাংলাদেশের টেকনাফ থেকে তেতুলিয়া পর্যন্ত দলের কার্যক্রম নিয়ে দিনরাত কাজ করে যাচ্ছি। তাই এবার আমার এলাকার জনগণের জন্য কিছু করতে চাই। বর্তমান তরুন প্রজন্মের নেতাকর্মীদের উৎসাহে আমি এবার আমার এলাকার জন্য উন্নয়ন মূলক কাজ করতে চাই। তাই কাজ করতে হলে আওয়ামী লীগের মনোনীত এমপি হতে হবে। আমার এলাকা নবীগঞ্জ-বাহুবল বাংলাদের সব আসন থেকে অবহেলিত একটি আসন। তরুনরা এবার আমাকে আওয়ামী লীগের এমপি পদপ্রার্থী হিসাবে মনোনয়ন চাইতে উৎসাহ দিচ্ছেন। তাই আমি সাধারণ মানুষের পাশে থেকে কাজ করতে দলের কাছে মনোনয়ন চাইবো’।

এরমধ্যে মুকিত চৌধুরী সম্বলিত নির্বাচনী বিভিন্ন সমাবেশ ও উঠান বৈঠক করছেন। তিনি স্থানীয় মুরুব্বিদের সাথে নির্বাচন নিয়ে কথা বলেছেন। তিনি আগামীতে প্রার্থী হচ্ছেন এটাই এখন নিশ্চিত। এদিকে বর্তমান সংরক্ষিত এমপি আমাতুল কিবরিয়া চৌধুরী কেয়া মাটি ও মানুষের সাথে মিশে গেছেন। সাধারণ মানুষের কাছে আমাতুল কিবরিয়া চৌধুরী কেয়ার জনপ্রিয়তা অতুলনীয়। 

সাধারণ মানুষ মনে করছেন আমাতুল কিবরিয়া চৌধুরী কেয়া মনোনয়ন ছাড়াই তিনি মন্ত্রি হবার যোগ্যতা অর্জন করে নিয়েছেন। আর তাই সাধারন জনগণ প্রাণের দাবি জানিয়ে বলেন আমরা, আমাতুল কিবরিয়া চৌধুরী কেয়াকে মন্ত্রি হিসাবে দেখতে চাই। কিন্তু বর্তমান তরুন প্রজন্মের নেতাকর্মী ও দলের ত্যাগী নেতারা হবিগঞ্জ-১ আসনের জন্য সংসদে নতুন এমপি দেখতে চাচ্ছেন। তারা আরও বলেছেন ডিজিটাল বাংলাদেশের সাথে তাল মিলিয়ে চলতে গেলে আমাদের হবিগঞ্জ-১ আসনের তরুন ও দলের ত্যাগি একজন এমপি চাই। কারন আমরা অবহেলিত, তাই আমরা আর অবহেলিত থাকতে চাই না, মাননীয় প্রধানমন্ত্রির কাছে আমাদের এই আকুল আবেদন। 

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
Study in RUSSIA
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : নিন্দ্রা ভৌমিক

খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2018 Eibela.Com
Developed by: coder71