eibela24.com
রবিবার, ১৮, নভেম্বর, ২০১৮
 

 
দেহে ক্যানসার আছে কিনা ১৩ বছর আগেই জানা যাবে
আপডেট: ১১:১৭ am ০৯-০৮-২০১৮
 
 


যুগের সাথে তাল মিলিয়ে আবিষ্কার হচ্ছে নতুন নতুন পদ্ধতি। বিজ্ঞানীরা এ নিয়ে রীতিমত গবেষণা চালিয়ে যাচ্ছেন। যেকোনো সময় ক্যানসার থাবা বসাতেই পারে আপনার শরীরে। দুর্যোগ যেমন বলে কয়ে আসে না তেমনি ক্যানসারও তাই। কিন্তু বিজ্ঞানীরা দাবি করছেন, ক্যানসারে আক্রান্ত হওয়ার ১৩ বছর আগেই তা বিশেষ একটি পরীক্ষায় বলে দেয়া সম্ভব।

সাফল্যের হার ১০০ শতাংশ। আপনি অবাক হলেও বিজ্ঞানীদের দাবি এমনটিই। একবার পরীক্ষা করে নিলেই সামনের ১৩ বছর আপনার জন্য কী অপেক্ষা করছে তা জেনে যাবেন।

সে অর্থে বিজ্ঞানের দুনিয়ায় এই আবিষ্কার হয়তো খুব বড় কিছু নয় কিন্তু ক্যানসার চিকিত্সার জন্য এই আবিষ্কার যথেষ্ট গুরুত্বপূর্ণ হতে চলেছে। কারণ বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই দেখা যায়, রোগী যখন হাসপাতালে আসেন, তখন সারা শরীরে ক্যানসার ডালপালা বিস্তার করে ফেলেছে।

হার্ভার্ড ও নর্থওয়েস্ট ইউনিভার্সিটির একদল গবেষক এমনটাই দাবি করেছেন। সম্প্রতি তাদের গবেষণাপত্রটি অনলাইন জার্নাল ইবায়োমেডিসিনে প্রকাশিত হয়েছে।

তারা লক্ষ্য করেন, প্রতিটি ক্রোমোজমের শেষপ্রান্তে টুপির মতো একটি অংশ রয়েছে। সেটি DNAকে সুরক্ষিত রাখে। পরীক্ষায় দেখা গেছে, শরীরে ক্যানসার বাসা বাঁধার অনেক আগে থেকেই ক্রোমোজমের সেই টুপি ক্রমশ জরাজীর্ণ চেহারা ধারণ করে। ।বিশেষ এই টুপিটিকে গবেষকরা বলেছেন টেলোমিয়ারস।

ক্যানসার হওয়ার আগে থেকেই টেলোমিয়ার স্বাভাবিক অবস্থায় যতটা ক্ষুদ্র, তার থেকেও ক্ষুদ্রতর হতে থাকে। আক্রান্ত হওয়ার চার বছর আগে সেটি আর সংকুচিত হয় না।

বিভিন্ন ধরনের ক্যানসারের ক্ষেত্রই গবেষকরা জিনের এই পরিবর্তনে মিল খুঁজে পেয়েছেন। সুতারাং সাধু সাবধান! জিনের টুপি দেখেই আগাম সতর্ক হয়ে যান।

নি এম/