eibela24.com
শনিবার, ১৭, নভেম্বর, ২০১৮
 

 
রাজশাহীতে বইয়ের দোকানে বাস, নিহত ৩
আপডেট: ০৩:২৫ pm ১৫-০৮-২০১৮
 
 


রাজশাহী নগরীর নওদাপাড়া এলাকায় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে একটি বাস রাস্তার পাশে একটি বইয়ের দোকানে ঢুকে পড়লে ঘটনাস্থলে দুজনসহ তিনজন নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছে আরো চারজন।

বুধবার (১৫ আগস্ট) সকাল ১১টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। 

ঘটনার পর উত্তেজিত জনতা রাস্তা অবরোধ করে বিক্ষোভ করে। অপরদিকে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন রাজশাহী জেলা প্রশাসক এস এম আবদুল কাদের। তিনি নিহতদের প্রত্যেকের পরিবারকে ২০ হাজার টাকা করে দেওয়ার ঘোষণা দেন।

দুর্ঘটনার পর ঘটনাস্থলেই মারা যান দুই জন। তারা হলেন, শাহমখদুম থানার মোড় এলাকার ইসলামের ছেলে ইসমাইল হোসেন পিঙ্কু (২৪) এবং মোহাম্মদ আলীর ছেলে সবুজ ইসলাম (৩২)। তারা উভয়েই ক্যাবল লাইনের কাজ করতেন এবং মোটরসাইকেলে করে যাচ্ছিলেন। আর হাসপাতালে আনার পর মারা যায় নগরীর নওদাপাড়ার ভাড়ালিপাড়া এলাকার রস্তমের মেয়ে এবং শাহমখদুম স্কুলের সপ্তম শ্রেণির ছাত্রী আনিকা (১৩)।এ ঘটনায় মিতু নামের অপর এক স্কুল ছাত্রী আহত হয়েছে। তারা ওই বইয়ের দোকানে ছিল। আহতদের সবাইকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

রাজশাহী নগরীর শাহ মখদুম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জিল্লুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ওই ঘটনার পর বাসটি জব্দ করা হয়েছে।

ওসি আরও জানান, অ্যারো বেঙ্গল নামের একটি যাত্রীবাহী বাস রাজশাহী থেকে নওগাঁর উদ্দেশে যাচ্ছিল। বুধবার বেলা ১১টার দিকে নওদাপাড়া এলাকায় এসে পৌঁছালে বাসটি নিয়ন্ত্রণ হারায়। একটি মোটরসাইকেলকে ধাক্কা দিয়ে লাবিবা লাইব্রেরি নামের একটি বইয়ের দোকানের ভেতর ঢুকে যায় বাসটি। ক্ষতিগ্রস্ত হয় জাহাঙ্গীর ট্রেডার্স নামের আরেকটি দোকান। ঘটনাস্থলেই দুইজন মারা যায়। অন্তত ৫ জন আহত হয়। পরে স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। হাসপাতালে এক স্কুলছাত্রীকে মৃত ঘোষণা করা হয়। ঘটনার পর পুলিশ সেখানে পৌঁছে বাসটি জব্দ করে নিয়ে আসে। এ ঘটনায় ওই এলাকায় চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে।

স্থানীয়রা জানান, অ্যারো বেঙ্গল বাসের হেলপার বাসটি চালাচ্ছিল। অদক্ষ হওয়ায় ও অসাবধানতায় এই দুর্ঘটনা ঘটেছে। তবে দুর্ঘটনার পর সেই হেলপার পলাতক রয়েছে। বাকি যাত্রীদের নিরাপদ স্থানে সরিয়ে এনেছে পুলিশ।

নি এম/