eibela24.com
মঙ্গলবার, ১১, ডিসেম্বর, ২০১৮
 

 
যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামীলীগ সভাপতি ডঃ সিদ্দিকুর রহমান
‘মেট্রো ওয়াশিংটন আ’মীলীগের ৩ নেতার অব্যহতি অবৈধ’
আপডেট: ০৯:১০ pm ১৬-০৪-২০১৬
 
 


এইবেলা ডেস্ক: মেট্রো  ওয়াশিংটন আওয়ামীলীগের তিন প্রভাবশালী নেতার অব্যহতি অবৈধ বলে ঘোষণা করেছের যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামীলীগের সভাপতি ডঃ সিদ্দিকুর রহমান ।


জানা গেছে, গত ১০ই এপ্রিল স্থানীয় একটি অনলাইন পত্রিকায় প্রকাশিত প্রেসনোটের মাধ্যমে মেট্রো ওয়াশিংটন আওয়ামীলীগের  তিন প্রথিতযশা ও প্রভাবশালী নেতার নামে যে সংবাদ প্রকাশিত হয়েছে তা সম্পূর্ণ অযৌক্তিক, অপ্রত্যাশিত ও অবৈধ। 
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামীলীগের এক  নেতা বলেন, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের গঠনতন্ত্র মোতাবেক দলের যে কাউকে ইচ্ছে মাফিক বহিষ্কার বা অব্যহতি দেয়া যায় না।যদি কেউ তা করে থাকে, ত তা অবৈধ ও গঠনন্তন্ত্র বিরোধী।
ওই নেতা আরও বলেন, দলের কেউ যদি দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গ করে থাকেন তবে তাদেরকে কারণ সমূহ উল্লেখ্য করে স্ব স্ব ঠিকানায় কারণ দর্শাণোর নোটিশ পাঠাতে হবে আগে। কারণ দর্শানোর পর সাময়িক অব্যহতি দিয়ে তা ঊর্ধ্বতন কমিটির কাছে পাঠাতে হবে অনুমোদনের জন্য। আমাদের সংগঠনের অনেক নেতাকর্মী রয়েছেন যারা এ বিষয়ে অজ্ঞ। তাই এরকম পরিস্থিতির উদ্ভব। 
 
জানা গেছে, দলের গঠনতন্ত্র অনুসারে, কোন ক্রমেই কারণ দর্শাণোর নোটিশ না দিয়ে সরাসরি অব্যহতি দেয়া যায় না। 
অবৈধভাবে বহিষ্কৃত এক নেতা জানান,  আমাদের প্রতিনিধি ডঃ সিদ্দিকুর রহমান যিনি  ইউএস আওয়ামীলগেরে সভাপতি, তাকে আমরা এ বিষটি নিয়ে প্রশ্ন করলে তিনি জানান আমাদের কাজ নেতা কর্মীদের বহিষ্কার করা নয়। কেউ যদি ভুল করে থাকেন তাদেরকে নোটিশ দিয়ে সতর্ক করানোই আমাদের কাজ। তাই মেট্রো ওয়াশিংটন আওয়ামীলীগের  কাউকে অব্যহতি দেওয়া হয় নি।যদি কেউ করে থাকেন তবে তা নিয়ম বর্হিভূত ও গঠনতন্ত্র বিরোধী। এধনের কাজ গর্হিতও বটে। 
যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামীলীগের সভাপতি  ডঃ সিদ্দিকুর রহমান ওই এ অবৈধ কাজ সম্পর্কে অন্যান্যদের সতর্ক করে দিয়ে জানান, যেখানে আমাদের সংগ্রাম হল রাজাকার আলবদর ও নব্য রাজাকারদের বিরোদ্ধে সেখানে এধরনের জনপ্রিয় নেতাদের বিরোদ্ধে এধরনের স্ববিরোধী অভিযোগ অনাকাংক্ষিত ও ভিত্তিহীন। আরো উল্লেখ্য যে অব্যহতি প্রাপ্তদের মাঝে এমন একজনের নাম আছে যিনি জীবন বাজি রেখে তত্ত্বাবধায়ক কাম সামরিক স্বৈরশাসন কালে জননেত্রীর বাংলাদেশ গমনের সফর সঙ্গী ছিলেন। উনাদের সাথে বর্তমান বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের দপ্তর সম্পাদক ডঃ গোলাপের নাম উল্লেখ্য। যারা এ ধরনের কাজ করেছেন তাদের বিরোধে সংগঠনের শীর্ষ মহলে শাস্তি চেয়ে সুপারিশ করব।
জানা গেছে, তিনি  ওয়ায়িংটন আওয়ামী লীগ নেতাদের আরও জানান, যারা আজ এই অব্যহতি পত্র স্বাক্ষর করেছেন তাদের সকলেই সেদিন ইউএসএ থাকলেও জননেত্রীর সফর সঙ্গী হবার সাহস দেখান নি। আর তারা কে সংগঠনের ?
বর্তমানে মেট্রো ওয়াশিংটন আওয়ামীলীগের যে অচল অবস্থা বিরাজমান তা বংলাদেশ আওয়ামীলীগের উর্ধতন নেতারা অবহিত রয়েছে বলে জানা গেছে। আর তাই অচিরেই মেট্রো ওয়াশিংটন তথা গ্রেটার ওয়াশিংটনের সকল কমিটি ভেঙে দিয়ে গনতান্ত্রিক পন্থায় নতুন নেতৃত্ব বেছে নেয়া হবে বলে সূ্ত্রে জানায়।
জানা গেছে,  গত ১৩ই এপ্রিল নিউইয়র্কের এক রেস্তোরাঁয় যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামীলীগের সভাপতির নেতৃত্বে মেট্রো ওয়াশিংটন আওয়ামীলীগের নেতাদের সাথে এক মত বিনিময় সভায় সভাপতি ডঃ সিদ্দিকুর রাহমান এসব কথা বলেন। 
অবৈধভাবে বহিষ্কৃত প্রবাসী নেতা দস্তগীর জাহাঙ্গীর জানান আমাদের প্রতিনিধির প্রশ্নে উত্তরে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামীলীগ সভাপতি  বলেন, বর্তমানে মেট্রো ওয়াশিংটন আওয়ামীলীগ থেকে কেউ বহিষ্কৃত বা অব্যহতি প্রাপ্ত নন। এবং আগামী কমিটি না হওয়া পর্যন্ত  বা পরবর্তি নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত সকলেই স্ব স্ব পদে বহাল আছেন। মেট্রো ওয়াশিংটন আওয়ামীলীগের সকল নেতা কর্মিদের প্রতি ধৈর্য্যশীল হবার নির্দেশ দেন তিনি।

 এছাড়াও সভায় যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামীলীগের সভাপতি ডঃ সিদ্দিকুর রহমানের স্ত্রী মিসেস সিদ্দিকুর রহমান (সদস্য ইউএস আওয়ামীলীগ), যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামীলীগের  সহ সভাপতি আবুল কাশেম, যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক  আবুল কালাম আজাদ,  যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামীলীগের  সাংগঠনিক সম্পাদক  ফারুক আহামেদ, যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামীলীগের  আইন বিষয়ক সম্পাদক  মোঃ বখতিয়ার, যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামীলীগের মোঃ বাপ্পা,  যুক্তরাষ্ট্র সেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি নুররুজ্জামান সর্দার প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
মেট্রো ওয়াশিংটন আওয়ামীলীগের পক্ষে উপস্থিত ছিলেন এডঃ অমর ইসলাম (সহ সভাপতি) , জীবক কুমার বড়ুয়া (সহসভাপতি),  ম্যারীলান্ড আওয়ামীলীগের সভাপতি  শেখ সেলিম ও গ্রেটার ওয়াশিংটন  আওয়ামী যুবলীগের আহ্বায়ক দেওয়ান আরশাদ আলী বিজয় প্রমুখ।

 এইবেলা ডটকম/ আরকেএম