eibela24.com
বুধবার, ০৮, ডিসেম্বর, ২০২১
 

 
অবশেষে সীমান্তে উত্তেজনা কমাতে সম্মত ভারত-চীন
আপডেট: ০৪:০৫ pm ১১-০৯-২০২০
 
 


দীর্ঘ টানাপোড়েনের পর অবশেষে সীমান্তে উত্তেজনা কমাতে সম্মত হল ভারত ও চীন। পূর্ব লাদাখে সৃষ্ট উত্তেজনা থেকে বেরিয়ে আসতে পাঁচ দফা পরিকল্পনার বিষয়ে একমত হয়েছে বিশ্বের সবচেয়ে বৃহৎ জনসংখ্যার দেশ দুটি। পরিকল্পনার মধ্যে অন্যতম হল- সীমান্ত ব্যবস্থাপনা নিয়ে বর্তমান দু’দেশের মধ্যে যেসব চুক্তি ও প্রোটোকল রয়েছে, তা মেনে চলা।

এছাড়া সীমান্তে শান্তি ও স্থিতাবস্থা বজায় রাখা, উত্তেজনা বাড়তে পারে এমন কোনও পদক্ষেপ থেকে নিজেদের বিরত রাখতে দু’দেশ একমত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার রাতে মস্কোয় চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ই এবং ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী জয়শংকরের মধ্যে দীর্ঘ বৈঠক হয়। সাংহাই কো-অপারেশন অর্গানাইজেশনের সম্মেলনের সাইডলাইনে এই বৈঠক হয়।
বৈঠক শেষ বৃহস্পতিবার গভীর রাতে দু’দেশের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় যৌথ বিবৃতি দেয়। ওই বিবৃতিতে মোট পাঁচটি পয়েন্টের উল্লেখ রয়েছে। বলা হয়েছে, খোলামেলা পরিবেশে দুই পররাষ্ট্রমন্ত্রীর মধ্যে গঠনমূলক আলোচনা হয়েছে।

লাদাখ সীমান্তে বর্তমানে যে উত্তেজনাকর পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে, তাতে শেষ পর্যন্ত কোনও পক্ষেরই লাভ হবে না- এ বিষয়ে দুই মন্ত্রীই একমত হয়েছেন। সীমান্তে সেনা সমস্যার সুরাহায় আলোচনা চালিয়ে যাওয়ার বিষয়ে তাই তারা একমত হয়েছেন।

এছাড়া মোতায়েন করা সেনা দ্রুত সরিয়ে নেওয়া হবে। দু’দেশের সেনারা যথাযথ দূরত্ব বজায় রাখবে। উত্তেজনা বাড়ে এমন কিছু করা থেকে তারা বিরত থাকবে।

চলতি বছরের মে মাস থেকেই লাদাখের প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখা (এলএসি) বরাবর একাধিক জায়গায় চীনা বাহিনীর সঙ্গে ভারতীয় সেনাদের সংঘাত বাঁধে। ভারতীয় ভূখণ্ডে ঢুকে পড়ার অভিযোগ উঠে চীনা সেনাদের বিরুদ্ধে।

গত ১৫ জুন রাতে লাদাখের গালওয়ান উপত্যকায় প্রাণঘাতী সংঘাতে ভারতের ২০ সেনা জওয়ান নিহত হন। এ ঘটনায় হতাহতের কথা স্বীকার করলেও সংখ্যা প্রকাশ করেনি চীন। এরপর থেকেই ওই এলাকায় যুদ্ধপ্রস্তুতি নিতে থাকে দু’দেশ। 

নি এম/