রবিবার, ২৪ অক্টোবর ২০২১
রবিবার, ৯ই কার্তিক ১৪২৮
সর্বশেষ
 
 
রাজধানীতে সৎ মাকে কুপিয়ে হত্যার পর মরদেহে আগুন
প্রকাশ: ০৪:৫৫ pm ৩০-১১-২০২০ হালনাগাদ: ০৪:৫৫ pm ৩০-১১-২০২০
 
এইবেলা ডেস্ক
 
 
 
 


সম্পত্তির লোভে সৎ মা সীমা আক্তারকে (৩৩) কুপিয়ে হত্যার পর লাশ পুড়িয়ে ফেলা হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

রবিবার (২৯ নভেম্বর) দুপুরে ঘটনাটি ঘটেছে রাজধানীর কাফরুল থানার বাইশটেক ইমাম নগর এলাকার একটি বাসায়।

প্রতিবেশিরা জানায়, পারিবারিক বিরোধের জেরে সৎ ছেলে নাহিদ এ হত্যাকাণ্ড ঘটিয়ে থাকতে পারে। পলাতক নাহিদকে খুঁজছে পুলিশ।

কাফরুলের বাইশটেকি ইমামনগরের এই ফ্ল্যাটে সীমা বেগম থাকতেন তার স্বামী শাহজাহান ও সৎ ছেলে নাহিদকে নিয়ে।

রবিবার দুপুরে এখান থেকে উদ্ধার করা হয় ৩৩ বছর বয়সী সীমার মরদেহ। ময়নাতদন্তের জন্য তার মরদেহ পাঠানো হয়েছে ঢাকা মেডিকেলের মর্গে।

স্থানীয়রা জানান, একবছর আগে সীমা আক্তারকে বিয়ে করেন শাহজাহান সিকদার। তিনি পেশায় একজন ব্যবসায়ী। তার ভালই স্থাবর অস্থাবর সম্পত্তি রয়েছে। শাজাহানের আগের ঘরের সন্তান নাহিদ তার বাবার বিয়ের বিষয়টি মেনে নিতে পারেনি। নিহত ওই গৃহবধূর বাড়ি গোপালগঞ্জের মুকসুদপুরে। শাহজাহানের বাড়ি ফরিদপুরের আলমডাঙ্গায়। ঘটনার পর থেকেই পলাতক রয়েছে নাহিদ।

এ বিষয়ে কাফরুল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সেলিমুজ্জামান বলেন, ‘সীমা আক্তারকে ছুরিকাঘাতে হত্যা করে পুড়িয়ে ফেলা হয়েছে, নাকি আগেই পুড়িয়ে হত্যা করে ছুরিকাঘাত করা হয়েছে তা এই মুহূর্তে নিশ্চিত বলা যাচ্ছে না।’

তিনি আরও বলেন, ‘ময়নাতদন্তের পর হত্যাকাণ্ডটি কীভাবে ঘটেছে তা জানা যাবে। 

এদিকে এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তিনজনকে পুলিশি হেফাজতে নেয়া হয়েছে।

নি এম/

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
আরও খবর

 
 
 

 

E-mail: info.eibela@gmail.com

a concern of Eibela Ltd.

Request Mobile Site

Copyright © 2021 Eibela.Com
Developed by: coder71